স্বপ্নদোষের সহজ সমাধান

0
684

ডা. মিজানুর রহমান :

বয়ঃসন্ধিকালে বা বয়ঃসন্ধিকাল পার হয়ে যাওয়ার পর স্বপ্নদোষ হওয়া খুবই স্বাভাবিক। এতে লজ্জা পাওয়ার কিছু নেই। ছেলে এবং মেয়ে উভয়েরই এটি হওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

প্রথম বার এরকম হলে অনেকেই ঘাবড়ে যেতে পারেন। কিন্তু এটি একটি প্রাকৃতিক বিষয়। বেশিরভাগ মানুষেরই এটি হয়ে থাকে। নিচে এর সম্বন্ধে বিস্তারিত দেওয়া হলো-

স্বপ্নদোষ কী?

ঘুমের মধ্যে যৌন উত্তেজনা বোধ করা বা যৌনাঙ্গ থেকে বীর্য বের হওয়াকে স্বপ্নদোষ বলে। সাধারণত ঘুমের মধ্যে যৌন উদ্দীপক কোন স্বপ্ন দেখলে এ সমস্যা হয়ে থাকে। সকালে উঠে এই স্বপ্ন আপনার স্মৃতিতি নাও থাকতে পারে।

হস্তমৈথুন করার সাথে স্বপ্নদোষের সম্পর্ক নেই। লিঙ্গে স্পর্শ না করলেও এটি হতে পারে।

কারণ

বয়ঃসন্ধিকাল শুরু হলে শরীরে হরমোন নিঃসরণের পরিমাণ বেড়ে যায়। এসময় পুরুষদের শরীরে টেস্টোস্টেরন হরমোন নিঃসৃত হওয়া শুরু করে, যা পুরুষের শরীরে বীর্য সৃষ্টিতে সাহায্য করে। এই বীর্য শরীরে জমা হতে থাকে। এটি মাঝে মাঝে স্বপ্নদোষের মাধ্যমে বের হয়ে যায়।

মাঝে মাঝেই স্বপ্নদোষ হওয়া কি কোন সমস্যা?

বেড়ে ওঠার সময় এরকম হতেই পারে। এতে ভয় পাওয়ার কিছু নেই এবং এটি নিয়ন্ত্রণ করারও কোন উপায় নেই।

অনেক বেশি স্বপ্নদোষ হলেও চিন্তার কোন কারণ নেই। কারো কারো সপ্তাহে কয়েকবার, আবার কারো কারো সারা জীবনে মাত্র ২-৩ বার এরকম হয়। বৈবাহিক জীবনযাপন শুরু করলে এ সমস্যা কমে আসে।

সবার হয় কি?

বয়ঃসন্ধিকাল থেকে শরীরে বির্য সৃষ্টি হওয়ার পর এরকম হয়। কিছু কিছু ক্ষেত্রে ব্যতিক্রম দেখা যেতে পারে। পুরুষ ও মহিলা উভয়েরই এসমস্যা হতে পারে।

স্বপ্নদোষ হলে কী করবেন?

ঘুম থেকে উঠে প্রথমে ভাল করে নিজেকে পরিষ্কার করবেন। স্বপ্নদোষের ব্যাপারে অস্বস্তিবোধ করলে ‘ভাইটাল পাওয়ার-২০০০’ সেবন করতে পারেন।

‘ভাইটাল পাওয়ার-২০০০’  এন্ডোমাইন গ্ল্যান্ডের ক্রিয়াশক্তি বৃদ্ধি এবং হরমোনাল নিঃসরণ স্বাভাবিক করে। দুর্বল ও অক্ষম নার্ভসমূহকে সবল, সতেজ ও কর্মক্ষম করে। যৌনশক্তি নিয়ন্ত্রণ করতে অতীব কার্যকরী ও নিরাপদ। এতে কোনো প্রকার রাসায়নিক পদার্থ নেই বলে কোনো পাশর্^প্রতিক্রিয়াও নেই।
‘ভাইটাল পাওয়ার-২০০০’ নিয়মিত সেবনে যৌনশক্তি স্থায়ীভাবে নিয়ন্ত্রণ ও অতি আনন্দদায়ক করে। মহিলা ও পুরুষের হরমোনাল ব্যালেন্স ফিরিয়ে আনে এবং শুক্রানু বৃদ্ধি করে। ফলে অধিকাংশ ক্ষেত্রে বন্ধ্যাত্ব দূরীভূত হয়।
সেবন বিধি : ১ চা চামচ চূর্ণ দিনে ২বার মধু / উষ্ণ পানি / পাতলা দুধের সহিত সেব্য।
সতর্কতা : উচ্চ রক্তচাপ ও হৃদরোগীদের ক্ষেত্রে পরামর্শ ছাড়া সেবন নিষেধ।
ঔষধটি পাওয়া যাবে অর্ডার করলে। অর্ডার দিতে হলে আপনার  নাম, ঠিকানা ও মোবাইল নাম্বার রোগের নামসহ  মেসেজ করুনএই নাম্বারে : 01777988889
ফেসবুকে মন্তব্য করুন
5,006 জন পড়েছেন