‘পুলিশ’ সদস্যের চুরির ভিডিও ভাইরাল! (ভিডিও)

0
38

১৯ মে, ২০১৮ ১২:২৮:৪৪

এক ‘পুলিশ সদস্যে’র মোবাইল চুরির ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে।

নারী-পুরুষের যে কোনোা যৌন সমস্যার (যৌন দুর্বলতা, সন্তান না হওয়া, সহবাসে ব্যর্থতা) সমাধানে ‘নাইট কিং’ ও ‘নাইট কিং গোল্ড’ কার্যকরী। বাংলাদেশের যে কোনো জেলা বা উপজেলায় কুরিয়ার সার্ভিসযোগে ‘নাইট কিং’ পেতে যোগাযোগ করুন : হাকীম মিজানুর রহমান, ইবনে সিনা হেলথ কেয়ার, যোগাযোগ করুন : (সকাল ১০টা থেকে রাত ০৮ টা (নামাজের সময় ব্যতীত) 01777988889 অথবা
01762240650
মূল্য : নাইট কিং- ১০৫০/- টাকা, নাইট কিং গোল্ড ১৩৫০/- টাকা।
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

বৃহস্পতিবার (১৭ মে) রাজধানীর কচুক্ষেত এলাকার রজনীগন্ধা মার্কেটে এ চুরির ঘটনা ঘটে। ভিডিও ও ছবিসহ পোস্টটি শেয়ার করার পাশাপাশি পুলিশ সদস্যের চুরির সমালোচনা করেছেন অনেকে।

এ ব্যাপারে কাফরুল থানার ওসি শিকদার মোহাম্মদ শামীম হোসেন বলেন, ঘটনাটি শুনেছি, তবে ওই পুলিশ সদস্য আমার থানার নয়।

ভাসানটেক থানার এসআই তাজরুল ইসলাম বলেন, মার্কেটটি ভাসানটেক থানা এলাকায়। তবে ভিডিওতে পুলিশের পোশাক পরিহিত ব্যক্তি এ থানার কোনো পুলিশ সদস্য নয়। দুই ব্যক্তি ছবি ও ভিডিও নিয়ে থানায় এসেছিলেন। ওই ছবি যাচাই-বাছাই করে দেখেছি, ছবির ব্যক্তির সঙ্গে এ থানার কোনো পুলিশ সদস্যের মিল নেই।

আবদুল খালেক নামের এক ফেসবুক ব্যবহারী তার আইডি থেকে চুরির ভিডিও ও ছবিসহ পোস্টটি দিয়েছেন।

তিনি লিখেছেন, এসব পুলিশ হল লাইসেন্সধারী চোর। গায়ে রাষ্ট্রীয় পোশাক। আর সেই পোশাক পরেই চুরি করছেন। তাও আবার ব্যবহার করা সামান্য একটা মোবাইল! সেই দৃশ্য ধরা পড়েছে সিসি ক্যামেরায়।

ভিডিওতে দেখা গেছে, একটি মোবাইলের দোকানে দুই ব্যক্তি দোকানদারের সঙ্গে কথা বলছেন। এর মধ্যে একজন তার একটি মোবাইল ফোন দোকানের কাচের শোকেসের ওপর রেখে প্রথমে পকেট থেকে সিগারেট বের করেন। পরে পাশের জন থেকে লাইটার নিয়ে সিগারেটে আগুন ধরান।

এরপর সিগারেট টানতে টানতে দোকানের একপাশে সরে দাঁড়ান। তিনি যখন পকেট থেকে সিগারেট বের করছিলেন তখন সেখানে পুলিশের এক সদস্য প্রবেশ করে শোকেসের ওপর যেখানে মোবাইলটি রাখা ছিল ঠিক সেখানে গিয়ে দাঁড়ান।

দোকানদারের সঙ্গে কথা বলতে বলতে মোবাইলটি টেপাটেপি করেন তিনি। তাকান এদিক-ওদিক। একপর্যায়ে মোবাইলটি হাতে তুলে নিয়ে দ্রুত চলে যান। পুরো ঘটনাটি দোকানে থাকা সিসি ক্যামেরায় ভিডিও হতে থাকে। ভিডিওতে সময় ও তারিখ দেখে এটি ১৭ মের ঘটনা ছিল বলে জানানো হয়েছে। সূত্র: যুগান্তর

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন

 

ফেসবুকে মন্তব্য করুন
274 জন পড়েছেন