দুই বোনকে গণধর্ষণ, ৫ জনের যাবজ্জীবন

0
80

জেলা প্রতিনিধি নারায়ণগঞ্জ

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ উপজেলায় দুই বোনকে গণধর্ষণের দায়ে পাঁচজনকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। একই সঙ্গে তাদের প্রত্যেককে ১ লাখ টাকা করে জরিমানা করা হয়।

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

মঙ্গলবার বিকেলে নারায়ণগঞ্জের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক মোহাম্মদ শাহীন উদ্দিন এ রায় ঘোষণা করেন।

নারী-পুরুষের যে কোনোা যৌন সমস্যার (যৌন দুর্বলতা, সন্তান না হওয়া, সহবাসে ব্যর্থতা, দ্রুত বীর্যপাত) সমাধানে ‘নাইট কিং’ ও ‘নাইট কিং গোল্ড’ কার্যকরী। বাংলাদেশের যে কোনো জেলা বা উপজেলায় কুরিয়ার সার্ভিসযোগে ‘নাইট কিং’ পেতে যোগাযোগ করুন : হাকীম মিজানুর রহমান, ইবনে সিনা হেলথ কেয়ার, যোগাযোগ করুন : (সকাল ১০টা থেকে রাত ০৮ টা (নামাজের সময় ব্যতীত) +88 01742057854, +88 01762240650, +88 01777988889
এছাড়াও শ্বেতী রোগ, ডায়াবেটিস, অশ্ব (গেজ, পাইলস, ফিস্টুলা), হার্টের ব্লকেজ, শ্বেতপ্রদর, রক্তপ্রদর ইত্যাদি রোগের চিকিৎসা দেয়া হয়।

রায় ঘোষণার সময় মামলার প্রধান আসামি শাহআলম আদালতে উপস্থিত ছিল। দণ্ডপ্রাপ্ত শাহআলম সোনারগাঁ উপজেলার মঙ্গলেরগাঁ এলাকার মৃত হজরত আলীর ছেলে। দণ্ডপ্রাপ্ত বাকি চারজন পলাতক রয়েছে। তারা হলো- একই গ্রামের আবদুল খালেকের তিন ছেলে খোকন, এমদাদ ও ইকবাল এবং হাবিবউল্লাহর ছেলে জিয়া।

আদালতের স্পেশাল পিপি রকিবউদ্দিন বলেন, ধর্ষণের শিকার দুই বোন পরিবার নিয়ে একসময় সোনারগাঁয়ে বসবাস করতেন। ২০০৮ সালে পরিবারের লোকজন ওই জমি বিক্রি করে লালমনিরহাটে চলে যান।

২০১০ সালের ২৮ মে দুই বোন সোনারগাঁয়ের শান্তিনগর এলাকাতে চাচার বাড়িতে বেড়াতে আসেন। সেদিন রাতে দুই বোনকে রাস্তা থেকে তুলে নিয়ে একটি বাগানে গণধর্ষণ করে আসামিরা।

একপর্যায়ে গাছে বেঁধে তাদের নগ্ন ছবি তুলে ১০ হাজার টাকা হাতিয়ে নেয়। এ ঘটনায় সোনারগাঁ থানায় ছয়জনের বিরুদ্ধে মামলা করে ধর্ষণের শিকার এক বোন। ওই মামলার আজ রায় দেন বিচারক।

প্রকাশিত: ০৬:৪০ পিএম, ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

ফেসবুকে মন্তব্য করুন
172 জন পড়েছেন