ফেনীতে ঘরে ঢুকে সপ্তম শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণ

0
85

জেলা প্রতিনিধি ফেনী

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

ফেনীর সোনাগাজীতে ঘরে ঢুকে সপ্তম শ্রেণির এক ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় অভিযুক্ত শাহীন মাহমুদ (২০) নামে এক যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। শুক্রবার রাতে উপজেলার মতিগঞ্জ এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

পুলিশ ও মামলার এজহার সূত্রে জানা যায়, ওই ছাত্রী ও শাহীনের পরিবার একই এলাকায় ভাড়া থাকে। শাহীন ওই ছাত্রীকে দীর্ঘদিন ধরে বিদ্যালয়ে আসা-যাওয়ার পথে উত্ত্যক্ত করতেন।

বিষয়টি মেয়ের পরিবার শাহীনের পরিবারকে জানায়। কিন্তু কোনো লাভ হয়নি। শুক্রবার সন্ধ্যায় ওই ছাত্রীর মা তার ছোট বোনকে নিয়ে ওষুধ আনতে সোনাগাজী পৌরশহরে যান। এর কিছুক্ষণ পর শাহীন ওই ছাত্রীর ঘরে ঢুকে তাকে ধর্ষণ করেন।

নারী-পুরুষের যে কোনোা যৌন সমস্যার (যৌন দুর্বলতা, সন্তান না হওয়া, সহবাসে ব্যর্থতা, দ্রুত বীর্যপাত) সমাধানে ‘নাইট কিং’ ও ‘নাইট কিং গোল্ড’ কার্যকরী। বাংলাদেশের যে কোনো জেলা বা উপজেলায় কুরিয়ার সার্ভিসযোগে ‘নাইট কিং’ পেতে যোগাযোগ করুন : হাকীম মিজানুর রহমান, ইবনে সিনা হেলথ কেয়ার, যোগাযোগ করুন : (সকাল ১০টা থেকে রাত ০৮ টা (নামাজের সময় ব্যতীত) +88 01742057854, +88 01762240650, +88 01777988889
এছাড়াও শ্বেতী রোগ, ডায়াবেটিস, অশ্ব (গেজ, পাইলস, ফিস্টুলা), হার্টের ব্লকেজ, শ্বেতপ্রদর, রক্তপ্রদর ইত্যাদি রোগের চিকিৎসা দেয়া হয়।

পরে ওই ছাত্রী তার তাকে সবকিছু জানায়। মেয়েকে নিয়ে ওই ছাত্রীর মা শাহীনের মায়ের কাছে গিয়ে বিচার চাইলে শাহীনের মা বিষয়টি অস্বীকার করে তাদের তাড়িয়ে দেন।

এরপর মেয়ের পরিবার সোনাগাজী থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে ধর্ষণ মামলা করেন। পরে পুলিশ রাতেই বাড়ি থেকে শাহীনকে গ্রেফতার করে।

সোনাগাজী মডেল থানা পুলিশের উপপরিদর্শক (এসআই) আনোয়ার হুসেন বলেন, জিজ্ঞাসাবাদে অভিযুক্ত শাহীন ধর্ষণের বিষয়টি স্বীকার করেছেন।

সোনাগাজী মডেল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মোয়াজ্জেম হোসেন বলেন, এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। আসামিকে শনিবার আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

প্রকাশিত: ০২:৪৯ পিএম, ০২ মার্চ ২০১৯

ফেসবুকে মন্তব্য করুন
164 জন পড়েছেন