188

কিশোরীকে ধর্ষণের পর ফেলে রাখা হয় রাস্তায়

চাঁদপুর রিপোর্ট ডেস্ক :

জয়পুরহাটের ক্ষেতলাল উপজেলায় এক স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় রাব্বি হোসেন নামের এক প্রতিবেশী যুবককে আটক করেছে পুলিশ।

গত বুধবার রাতে উপজেলার বিনাই-পাঁচখুপি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার পরদিন গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে ওই গ্রামেরই একটি রাস্তার পাশ থেকে ওই কিশোরীকে উদ্ধার করেন প্রতিবেশীরা।

Night King Sex Update
নারী-পুরুষের যে কোনোা যৌন সমস্যার (যৌন দুর্বলতা, সন্তান না হওয়া, সহবাসে ব্যর্থতা, দ্রুত বীর্যপাত) সমাধানে ‘নাইট কিং’ ও ‘নাইট কিং গোল্ড’ কার্যকরী। বাংলাদেশের যে কোনো জেলা বা উপজেলায় কুরিয়ার সার্ভিসযোগে ‘নাইট কিং’ পেতে যোগাযোগ করুন : হাকীম মিজানুর রহমান, ইবনে সিনা হেলথ কেয়ার, যোগাযোগ করুন : (সকাল ১০টা থেকে রাত ০৮ টা (নামাজের সময় ব্যতীত) +88 01742057854, +88 01762240650, +88 01777988889
এছাড়াও শ্বেতী রোগ, ডায়াবেটিস, অশ্ব (গেজ, পাইলস, ফিস্টুলা), হার্টের ব্লকেজ, শ্বেতপ্রদর, রক্তপ্রদর ইত্যাদি রোগের চিকিৎসা দেয়া হয়।

পুলিশ জানায়, গত বুধবার রাতে বাড়িতে কেউ না থাকায় ওই স্কুলছাত্রীকে জোর করে নিজের বাড়িতে নিয়ে যায় প্রতিবেশী যুবক রাব্বি হোসেন। পরে ঘরের ভেতর আটকে রেখে ওই কিশোরীকে ধর্ষণ করে রাব্বি। এদিকে বাড়ি ফিরে মেয়েকে না পেয়ে বিভিন্ন জায়গায় খোঁজ করতে থাকেন কিশোরীর মা।

পরদিন বৃহস্পতিবার সকালে গ্রামের একটি সড়কের পাশে আহত অবস্থায় ওই কিশোরীকে পড়ে থাকতে দেখেন প্রতিবেশীরা। পরে তাকে উদ্ধার করে জয়পুরহাট আধুনিক জেলা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

গতকাল রাতে কিশোরীর মা ক্ষেতলাল থানায় অভিযোগ করলে রাতেই অভিযুক্ত রাব্বি হোসেনকে আটক করে পুলিশ। এ ব্যাপারে কিশোরীর মা বাদী হয়ে ক্ষেতলাল থানায় একটি মামলা করেছেন।

ক্ষেতলাল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহরিয়ার খান জানান, ষষ্ঠ শ্রেণির এক ছাত্রী ধর্ষিত হয়েছে বলে আমরা খবর পাই। পরে দ্রুত একটি পুলিশ টিম ঘটনাস্থলে পাঠাই। এ ঘটনায় অভিযুক্ত রাব্বিকে গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয়েছি। তিনি এখন পুলিশি হেফাজতে রয়েছে। যে ভিকটিম, তাকে হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। পরবর্তী আইনানুগ ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে বলে জানান ওসি শাহরিয়ার।

প্রকাশিত : ২৬ এপ্রিল ২০১৯ খ্রিস্টাব্দ, শুক্রবার : ০২:২৫ পিএম

চাঁদপুর রিপোর্ট-এমআরআর

 

374 জন পড়েছেন
শেয়ার করুন