কুমিল্লায় ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ১২ মামলার আসামি নিহত

0
24

চাঁদপুর রিপোর্ট ডেস্ক :

কুমিল্লায় পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ শহিদুল ইসলাম ওরফে কুটু নামে এক মাদক ব্যবসায়ী নিহত হয়েছেন। কুটু মাদক ও অস্ত্রসহ ১২ মামলার আসামি।

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

বৃহস্পতিবার ভোরে জেলার আদর্শ সদর উপজেলার সাতরা গ্রামে এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে। নিহত শহিদুল ওই গ্রামের দেলোয়ার হোসেনের ছেলে।

ঘটনাস্থল থেকে দেশীয় তৈরি একটি একনলা বন্দুক ও ৩টি কার্তুজ এবং ৬৫২ পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়েছে বলে পুলিশ জানিয়েছে।

নারী-পুরুষের যে কোনোা যৌন সমস্যার (যৌন দুর্বলতা, সন্তান না হওয়া, সহবাসে ব্যর্থতা, দ্রুত বীর্যপাত) সমাধানে ‘নাইট কিং’ ও ‘নাইট কিং গোল্ড’ কার্যকরী। বাংলাদেশের যে কোনো জেলা বা উপজেলায় কুরিয়ার সার্ভিসযোগে ‘নাইট কিং’ পেতে যোগাযোগ করুন :
হাকীম মিজানুর রহমান
ইবনে সিনা হেলথ কেয়ার, যোগাযোগ করুন : (সকাল ১০টা থেকে রাত ০৮ টা (নামাজের সময় ব্যতীত) +88 01762240650, +88 01777988889
এছাড়াও শ্বেতী রোগ, ডায়াবেটিস, অশ্ব (গেজ, পাইলস, ফিস্টুলা), ব্লকেজ, শ্বেতপ্রদর, রক্তপ্রদর ইত্যাদি রোগের চিকিৎসা দেয়া হয়।

পুলিশ জানায়, তালিকাভুক্ত মাদক ব্যবসায়ী ও অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী শহিদুল ইসলাম কুটুর (৩০) বাড়িতে অস্ত্র উদ্ধারে অভিযান পরিচালনা করে কোতয়ালি মডেল থানা পুলিশ।

পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে মাদক ব্যবসায়ী শহিদুল ও তার সহযোগীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি চালায়। এ সময় পুলিশও আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি চালায়। একপর্যায়ে সন্ত্রাসী শহিদুল গুলিবিব্ধ হয়ে আহত হন। পরে তাকে উদ্ধার করে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পর কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

কোতয়ালি মডেল থানা পুলিশের ওসি মোহাম্মদ আবু ছালাম মিয়া জানান, নিহত শহিদুল ইসলাম কুটু পুলিশের তালিকাভুক্ত মাদক ব্যবসায়ী ও অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী। তার বিরুদ্ধে অস্ত্র মাদকসহ বিভিন্ন অভিযোগে থানায় ১০-১২টি মামলা রয়েছে।

প্রকাশিত : ১৬ মে ২০১৯ খ্রিস্টাব্দ, বৃহস্পতিবার : ১১:৪৭ এএম

চাঁদপুর রিপোর্ট-এমআরআর

ফেসবুকে মন্তব্য করুন
161 জন পড়েছেন