478

মতলব উত্তর উপজেলা যুবলীগ বারো বছরেও কমিটির মেয়াদ শেষ হয়নি

সফিকুল ইসলাম রানা, মতলব উত্তর প্রতিনিধিঃ
গঠনতন্ত্র মতে বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয় তিন বছর পর পর। যা ‘ত্রিবার্ষিক সম্মেলন’ নামে পরিচিত। কিন্তু চাঁদপুরের মতলব উত্তর উপজেলার যুবলীগের তিন বছরের কমিটির মেয়াদ বারো বছরেও শেষ হয়নি। আদৌ সম্মেলন হবে কিনা তাও বলতে পারছেন না নতুন নেতৃৃত্বে আসতে চাওয়া সাবেক ছাত্রনেতারা। দীর্ঘদিন সম্মেলন না হওয়ায় জেলার গুরুত্বপূর্ণ এ উপজেলায় নেতৃত্বের বিকাশ ঘটছে না বলেও দাবি তাদের। ২০০০ সালে মতলব উত্তর উপজেলা পরিষদ গঠিত হয়। উপজেলা গঠনের পর একবারই যুবলীগের সম্মেলর অনুষ্ঠিত হয়।
জানা যায়, ২০০৭ সালে মতলব উত্তর উপজেলা যুবলীগের সে সময়ের আহ্বায়ক মো. মিজানুর রহমান সম্মেলনের মাধ্যমে আহ্বায়কের পদ ছেড়ে দিলে দেওয়ান জহিরুল ইসলামকে সভাপতি এবং কাজী শরীফ হোসেনকে সাধারণ সম্পাদক করে দু’জনের কমিটি ঘোষণা করে জেলা যুবলীগ। সে সময়ের অনুমোদিত কমিটির মেয়াদ ১২ বছর পার হয়েছে।
ওই সময় উপজেলা যুবলীগের কার্যক্রম নজরে পড়ার মতো হলেও পরবর্তীতে উপজেলা যুবলীগের কয়েকজন নেতা ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগে স্থান করে নেন। উপজেলা যুবলীগের সম্মেলনকে ঘিরে ইউনিয়ন ও পৌরসভার নতুন কমিটি গঠন করাও হয়। কিন্তু অদৃশ্য কারনে তা আলোর মুখ দেখেনি যুব নেতারা। সভাপতি সম্পাদক হওয়ার ১২ বছর পরও তারা যুবলীগকে সুসংগঠিত করতে পারেনি বলে অভিযোগ একাধিক যুব নেতার।
খোঁজ নিয়ে জানা যায়, জেলা যুবলীগের পক্ষ থেকে কয়েক দফা তাগিদ দেয়ার পরও সম্মেলন করতে ব্যর্থ হয়েছেন মতলব উত্তর উপজেলা যুবলীগের বর্তমান কমিটির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক।
জেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি (বর্তমান আহ্বায়ক) আলহাজ্ব মিজানুর রহমান ভূঁইয়া কালু ২০০৭ সালে মতলব উত্তর উপজেলা যুবলীগের কমিটি অনুমোদন দিয়েছিলেন।
উপজেলা যুবলীগের সম্মেলন সম্পন্ন করতে কয়েক দফা চেষ্টা করেও সম্মেলন করতে পারেনি।
চাঁদপুর-২ (মতলব উত্তর-মতলব দক্ষিণ) আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব এডভোকেট নুরুল আমিন রুহুল ৩০ ডিসেম্বর নির্বাচিত হওয়ার পর মতলব উত্তর উপজেলা যুবলীগকে সুসংগঠিত করার জন্য পুরানো কমিটি সম্মেলনের মাধ্যমে ভেঙ্গে নতুন নেতৃত্ব তৈরির চেষ্টা করে যাচ্ছেন।

প্রকাশিত : ২৯ জুন ২০১৯ খ্রিস্টাব্দ, শনিবার

চাঁদপুর রিপোর্ট-এমকেজেড

 103 সর্বমোট পড়েছেন,  1 আজ পড়েছেন

শেয়ার করুন