চাঁদপুরে বিয়ে বাড়িতে সন্ত্রাসী হামলা : আহত ১০, আটক ১৩

0
73

চাঁদপুর রিপোর্ট ডেস্ক :

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

চাঁদপুরে বিয়ে বাড়িতে সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় মহিলারা মানববন্ধন করেছে।

চাঁদপুর সদর উপজেলা হাইমচর ইউনিয়নের ২ নং উত্তর আলগি ইউনিয়নের ৮ নং ওয়ার্ড মহজমপুর গ্রামে সরকারি কলোনিতে এই হামলার ঘটনা ঘটে।

নারী-পুরুষের যে কোনোা যৌন সমস্যার (যৌন দুর্বলতা, সন্তান না হওয়া, সহবাসে ব্যর্থতা, দ্রুত বীর্যপাত, মেহ-প্রমেহ) সমাধানে ‘নাইট কিং’ ও ‘নাইট কিং গোল্ড’ কার্যকরী। বাংলাদেশের যে কোনো জেলা বা উপজেলায় কুরিয়ার সার্ভিসযোগে ‘নাইট কিং’ পেতে যোগাযোগ করুন :
হাকীম মিজানুর রহমান
ইবনে সিনা হেলথ কেয়ার, যোগাযোগ করুন : (সকাল ১০টা থেকে রাত ০৮ টা (নামাজের সময় ব্যতীত) +88 01762240650, +88 01777988889
এছাড়াও শ্বেতী রোগ, ডায়াবেটিস, অশ্ব (গেজ, পাইলস, ফিস্টুলা), ব্লকেজ, শ্বেতপ্রদর, রক্তপ্রদর ইত্যাদি রোগের চিকিৎসা দেয়া হয়।

হাইমচর বয়েজ স্কুল মাঠে স্বাধীনতা কাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের সেমিফাইনালে জুভনটাছ নাইট স্টার ও রংধনু ক্লাবের মধ্যকার খেলায় সংঘর্ষের ঘটনাকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষ জাহাঙ্গীর বেপারীর নেতৃত্বে বিয়ে বাড়িতে এই হামলার ঘটনা ঘটে।

শুক্রবার রাতে সন্ত্রাসী হামলায় বিয়ে বাড়ির গেইট ও সরকারি কলোনির বেশ কয়েকটি বসত ঘর ভাঙচুর করা হয়েছে। এসময় সন্ত্রাসী হামলার ১০ জন মহিলা ও শিশু কিশোরী আহত হয়েছে। তবে আহতরা হাইমচর সাস্থকমপ্লেস ও চাঁদপুর হাসপাতালে চিকিৎসা আবস্থায় রয়েছে।

শনিবার দুপুর একটায় সন্ত্রাসী হামলায় ঘটনায় জাহাঙ্গীর ব্যাপারীর দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে প্রায় শতাধিক মহিলা মানববন্ধন করেন।

হামলায় আহত মহিলা জেসমিন ও ফাতেমা বেগম জানায়, সরকারি কলোনিতে সুফিয়ান বেপারীর মেয়ে সালমা আক্তার এর বিয়ের গায়ে হলুদ অনুষ্ঠান চলছিল। হঠাৎ করে রাতে প্রায় জাহাঙ্গীর ব্যাপারীর নেতৃত্বে ৪০/৫০ জন যুবক দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে অতর্কিতভাবে হামলা চালায়। সন্ত্রাসীরা মহিলা ও শিশুদের শরীরের জামা কাপড় ছিড়ে শ্রীলতাহানির চেষ্টা চালায়।

খবর পেয়ে হাইমচর থানার তদন্ত ওসি আলমগীর এস আই কামাল সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থলে এসে ১৩ জন সন্ত্রীদের আটক করে আটককৃতদের থানায় নিয়ে পুলিশ তাদেরকে ছেড়ে দেয়। এই সন্ত্রাসী হামলায় হামলাকারীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান এলাকাবাসী।

প্রকাশিত : ০৮ জুন ২০১৯ খ্রিস্টাব্দ, শনিবার : ০২:০৪ পিএম

চাঁদপুর রিপোর্ট-এমআরআর

ফেসবুকে মন্তব্য করুন
233 জন পড়েছেন