ফরিদগঞ্জের তা¤্রশাসনে সংখ্যালঘু পরিবারের ভূমি দখলের পাঁয়তারা

0
14

নিজস্ব সংবাদদাতাঃ
ফরিদগঞ্জ উপজেলার ৪নং সুবিদপুর পশ্চিম ইউনিয়নের তা¤্রশাসন গ্রামে ভূমিদস্যু কর্তৃক এক অসহায় সংখ্যালঘু পরিবারের ভূমি দখলের পাঁয়তারার অভিযোগ উঠেছে।
অভিযোগের আলোকে তা¤্রশাসন পালের বাড়িতে সরেজমিনে গেলে অভিযোগকারী ক্যাশব দেবনাথ জানান, তাদের পৈত্রিক সম্পত্তি সূত্রে তারা মোট ৩ একর ৬৫ শতাংশ জায়গার মালিক। তার মধ্যে বি এস ৮ নং খতিয়ানেই মোট ১ একর ৭২ শতাংশ এবং বাকি জায়গা ভিপি সম্পত্তি হিসাবে গত শতাধিক বছর যাবত ভোগ দখল করে আসছে। তার মধ্যে গত কয়েক বছরে তাদের নগদ অর্থের প্রয়োজন হলে মোট একশত ৬৮ শতাংশ সম্পত্তি এলাকার কয়েকজনের কাছে বিক্রি করে দখল বুঝিয়ে দেয়। এরই মধ্যে কেশব দেবনাথের অনেক সম্পত্তি বিধায় পার্শ্ববর্তী বাড়ির ভূমিলোভী আব্দুল মালেক গাজীর সে দিকে নজর পড়ে। তাই তিনি একাধিক জাল দলিল করে কেশব দেবনাথদের কয়েকটি সম্পত্তি ভোগ দখল করতে যায়। কিন্তু কেশব দেবনাথরা আইনের আশ্রয় নেওয়াতে মালেক গাজী ভূমি দখলে ব্যর্থ হয় বলে তারা জানান। অন্যদিকে মালেক গাজী তার ভূমি লালসা বুকে চেপে ধরে ওঁৎ পেতে আছে ভূমি দখলের। তাই তিনি ইতিপূর্বে কেশব দের বিরুদ্ধে কোর্টেও মামলা করেন। কিন্তু কোর্টে আব্দুল মালেক গাজীর দলিলগুলো জাল দলিল হিসেবে প্রমাণিত হয় এবং দলিল মূলে সাক্ষীরা সাক্ষী দিতে যায় না বলে কোর্ট মামলা খারিজ করে দেয় বলে কেশব দেবনাথ অভিযোগ করেন।
অন্যদিকে এলাকার যোগেশ্বর, গতিত্রাই দেবনাথ, বাবুল হোসেন খান, মোহাম্মদ সিরাজ পাটোয়ারীসহ আরো কয়েকজনের সাথে কথা হলে তারা জানান, মালেক গাজী শুধু কেশব দেবনাথদের সম্পত্তির উপরই লোভ না, মালেক গাজী এলাকার আরো অনেকের সম্পত্তি নিয়ে ছলচাতুরি করেছেন।
অন্যদিকে মালেক গাজী এই প্রতিনিধির সাথে সরাসরি কথা না বলে তার পক্ষের কয়েকজন লোক দ্বারা এই প্রতিনিধিকে জানান, কেশব দেবনাথদের নিকট তিনি ক্রয়সূত্রে জায়গার মালিক। এবং কোর্টে মামলা করে তিনিই মামলার রায় পেয়েছেন বলে জানান। ব্যাপারটি নিয়ে এলাকায় বড় ধরনের সমস্যা হওয়ার সম্বাবনা বেশি। তাই ব্যাপারটি নিয়ে কেশব দেবনাথরা প্রশাসনের সু-দৃষ্টি কামনা করছেন।

প্রকাশিত : ১৪ জুলাই ২০১৯ খ্রিস্টাব্দ, রবিবার

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

চাঁদপুর রিপোর্ট-এমকেজেড

ফেসবুকে মন্তব্য করুন
72 জন পড়েছেন