কুমিল্লায় ট্রেনে কাটা পড়ে দুই শিক্ষার্থী নিহত

0
12

জাহাঙ্গীর আলম ইমরুল, কুমিল্লা প্রতিনিধিঃ
কুমিল্লায় ট্রেনে কাটা পড়ে দুই শিক্ষার্থী নিহত হয়েছে। শুক্রবার জেলার আদর্শ সদর উপজেলার বদরপুর এলাকায় রেলসেতুর দক্ষিণ অংশে এ ঘটনা ঘটে।
নিহতরা হচ্ছেন- জেলার সদর উপজেলার শাসনগাছা এলাকার মনিরুল হকের ছেলে স্বপ্নীল হক আদিত্য (১৩) এবং ধর্মপুর এলাকার সুবল রায়ের মেয়ে সেতু রায় (১৫)।
এদিকে দুর্ঘটনার পর নিহতদের মরদেহ ফাঁড়িতে নিয়ে আসার পর স্বজনদের কান্নায় এলাকার পরিবেশ ভারী হয়ে ওঠে। আদিত্য পুলিশ লাইনস উচ্চ বিদ্যালয়ের ৭ম শ্রেণীর ছাত্র। সেতু রেলওয়ে পাবলিক উচ্চ বিদ্যালয়ের ৯ম শ্রেণীর ছাত্রী।
স্থানীয়দের বরাত দিয়ে পুলিশ জানান, ঘুরতে গিয়ে সেতু রায় নামে ওই মেয়েটি রেল লাইনের একটি অংশে আটকা পড়লে পরে আদিত্য তাকে বাঁচাতে যায়। পরে তারা দুইজনই ট্রেনে কাটা পড়ে মারা যায়।
কুমিল্লা রেলওয়ে ফাঁড়ির ইনচার্জ উপ-পরিদর্শক মেজবাউল হক মেজবাহ জানান, ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম অভিমুখী মহানগর প্রভাতী এক্সপ্রেস ট্রেনটি দুপুরে বদরপুর এলাকা অতিক্রম করার সময় দুই শিক্ষার্থী ওই ট্রেনে কাটা পড়ে। স্থানীয়দের মাধ্যমে এমন খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে নিহতদের মরদেহ উদ্ধার করে কুমিল্লা রেলওয়ে পুলিশ ফাঁড়িতে নিয়ে আসে।
ময়নাতদন্তের জন্য তাদের মরদেহ কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।
আদিত্যর বাবা মনিরুল হক জানান, আমার মস্ত্রী গত জুন মাসে মারা যায়। তারপর থেকে আদিত্যই আমার দেখভাল করতো। তাকে এত তাড়াতাড়ি হারিয়ে ফেলবো তা ভাবতে পারছিনা। এ সময় নিকটাত্মীয়রা আদিত্যদের শাসনগাছার বাসায় আসলে মূর্ছা যান মনিরুল হক।
এদিকে নগরীর ধর্মপুরে সুবল রায়ের বাড়িতে গিয়ে দেখা যায়,পরিবারের সদস্যরা শোকে বিহ্বল। কারো মুখে কথা নেই। সেতু রায়ের মা গোলাপী রায় মেয়ে হারানোর শোকে আচ্ছন্ন হয়ে আছেন। কারো সাথে কথা বলতে পারছেন না।

প্রকাশিত : ২৪ আগষ্ট ২০১৯ খ্রিস্টাব্দ, শনিবার

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

চাঁদপুর রিপোর্ট-এমকেজেড

ফেসবুকে মন্তব্য করুন
72 জন পড়েছেন