জীবন সংগ্রামে ঝালমুড়ি বিক্রেতা কাজিম উদ্দিন

0
28

ইমরান নাজির, মতলব দক্ষিণ প্রতিনিধি:
পেশায় দ্রাম্যমাণ ঝাঁল মুড়ি বিক্রেতা কাজিম উদ্দিন বয়স ৭০ ছুঁইছুঁই তারপরেও প্রতিনিয়ত বিভিন্ন হাট বাজারে নিজের হাতে বানানো সু-স্বাদু ঝাঁল মুড়ি বিক্রি করছেন।

চোখে-মুখে চাহনিতে নেই বাড়তি কোনো আয়ের চিন্তা,তবুও পরিবারের সাথে দু’বেলা পেটভরে খেয়েদেয়ে সুস্থ থাকলেই মনে হয় যেনো পূর্ণ হয়ে গেছে আশার আলো সত্যি হয়েছে সব।

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

বৃদ্ধ বয়সের শেষ দিনগুলো ছোট চাহিদায় একটু আরামদায়ক হলেই এ যেনো বিশাল প্রাপ্তি।

সংসার জীবনে ছিলো অনেক বড় স্বপ্ন যা আজ বিধস্থ। চার ছেলে ও এক মেয়ে নিয়ে যার ছিলো আকাশ চুম্বি স্বপ্ন সে আজ জীবন সংগ্রামে দ্রাম্যমাণ ঝাঁল মুড়ি বিক্রেতা কাজিম উদ্দিন।

তিনি চাঁদপুরের মতলব দক্ষিণ উপজেলার ৫নং উপাদী উওর ইউনিয়নের উপাদী গ্রামের স্থায়ী বাসিন্দা তার সাথে কথা বলে কাগজ-কলমের সমন্বয়ে উঠে আসে বাস্তব জীবন সংগ্রামের গল্প।

সোমবার (১৬ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় কর্মব্যস্থতার ফাঁকে জীবন সংগ্রামের গল্প তুলেধরেন ৭০ ছুঁইছুঁই কাজিম উদ্দিন দু’মুঠো পেটভরে খাওয়ার জন্য প্রতিদিন মাইলের পর মাইল পায়ে হেটে কাঁধে জুড়ি আর মাথায় বড় পাত্রে বিভিন্ন উপকরন নিয়ে উপজেলার বিভিন্ন হাট বাজারে সু-স্বাদু ঝাঁল মুড়ি বিক্রি করেন।

সংসারে স্ত্রী, ৪ ছেলে,১ মেয়ে। যার মধ্যে দু’ছেলে খোজ খবর নেওয়া বন্ধ করেছেন অনেক আগেই, আর বাকি দু’ছেলে কাঠ মিস্ত্রীর কাজ করে জীবন নির্বাহ করছেন।যতটুকু পারে সহযোগিতা করে।এদিকে বছর দু’য়েক আগে অর্থের অভাবে একমাত্র মেয়েটির পড়ালেখা বন্ধ হয়ে যায়। তবুও কারো কাছে হাত পাতেননি।

নিজের সম্পর্কে জানতে চাইলে আরও বলেন,ছোট একটি কুড়ে ঘরে স্ত্রী ও কন্যা’কে নিয়ে কোনো রকম দিন ঝাপন করচ্ছি। এটুকু বয়সে আর পারচ্ছি না,নিজের শরীরের অবস্থাও অনেক দিন যাবত ভালো যাচ্ছে না। কয়েক দিন আগে টাইফয়েড জ্বরে আক্রান্ত হওয়ার পর থেকে স্বাভাবিক ভাবে চলাফেরা করতে খুব কষ্ট হয়। তবুও পেটের দায়ে ঝাঁল মুড়ি বিক্রি করি তবুও কষ্টের মাঝে জীবন চলে।

মনে অনেক আক্ষেপ নিয়ে বলেন আমি সরকারী ভাবে কোনো আর্থিক সহযোগিতা পাইনা। কোনো চেয়ারম্যান, মেম্বার আমাকে বয়স্ক ভাতা কিংবা কোনো আর্থিক সাহায্য কোন দিন করেনি। আমাকে যদি মতলবের এমপি স্যার, ইউএনও স্যার কোনভাবে সহযোগিতা করে হয়তো আরেকটু ভালো থাকতে পারতাম।

বৃদ্ধা কাজিম উদ্দিনের মতো আমাদের সমাজে এমন হাজারো বৃদ্ধা রয়েছে যারা মৃত্যুর আগ পর্যন্ত সৎভাবে জীবনের সাথে প্রতিনিয়ত যুদ্ধ চালিয়ে যাচ্ছেন। একমাত্র কর্মই পারে মানুষকে জীবনে চলার পথে সহজ ও সাবলীন করতে তারই জীবন্ত উদাহরন কাজিম উদ্দিন।

 

প্রকাশিত : ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯ খ্রিস্টাব্দ, মঙ্গলবার

চাঁদপুর রিপোর্ট : এমআরআর/

ফেসবুকে মন্তব্য করুন
82 জন পড়েছেন