বন্ধুদের সঙ্গে মিলে রাতভর প্রেমিকাকে ধর্ষণ

0
400

 

চাঁদপুর রিপোর্ট ডেস্ক :

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

 

সিরাজগঞ্জের কামারখন্দে এক কিশোরীকে (১৭) গণধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে।

গত রোববার (১৫ সেপ্টেস্বর) রাতভর ওই কিশোরীর কথিত প্রেমিক ও তার বন্ধুরা এ ঘটনা ঘটায়।

এ ঘটনায় ওই কিশোরীর ভাই বাদী হয়ে সোমবার দুপুরে চারজনের নাম উল্লেখ করে ও অজ্ঞাতনামা দুইজনকে আসামি করে কামারখন্দ থানায় মামলা করেছেন।

নারী-পুরুষের যে কোনোা যৌন সমস্যার (যৌন দুর্বলতা, সন্তান না হওয়া, সহবাসে ব্যর্থতা, দ্রুত বীর্যপাত, মেহ-প্রমেহ) সমাধানে ‘নাইট কিং’ ও ‘নাইট কিং গোল্ড’ কার্যকরী। বাংলাদেশের যে কোনো জেলা বা উপজেলায় কুরিয়ার সার্ভিসযোগে ‘নাইট কিং’ পেতে যোগাযোগ করুন :
হাকীম মিজানুর রহমান
ইবনে সিনা হেলথ কেয়ার, যোগাযোগ করুন : (সকাল ১০টা থেকে রাত ০৮ টা (নামাজের সময় ব্যতীত) 01762240650, 01834880825
এছাড়াও শ্বেতী রোগ, ডায়াবেটিস, অশ্ব (গেজ, পাইলস, ফিস্টুলা), ব্লকেজ, শ্বেতপ্রদর, রক্তপ্রদর ইত্যাদি রোগের চিকিৎসা দেয়া হয়।

গণধর্ষণের শিকার ওই কিশোরীর বাড়ি উল্লাপাড়া উপজেলায়। এ ঘটনায় সোমবার বিকেলে অভিযুক্ত দুই যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

গ্রেফতাররা হলেন- কামারখন্দ উপজেলার কুটিরচর গ্রামের দুলাল সেখের ছেলে আশরাফুল ইসলাম (২০) এবং একই এলাকার মুকাদ্দেস আলীর ছেলে নাইমুল হক (২০)।

কামারখন্দ থানা পুলিশের পরিদর্শক (তদন্ত) পলাশ চন্দ্র দেব জানান, অভিযুক্ত আশরাফুল ইসলামের সঙ্গে ওই কিশোরীর প্রেমের সর্ম্পক ছিল। গত রোববার রাতে উল্লাপাড়া থেকে আশরাফুল ওই মেয়েকে নিয়ে আসে। এরপর কামারখন্দ উপজেলার কুটিরচর এলাকার একটি নির্মাণাধীন ভবনে নিয়ে যায়। একপর্যায়ে সেখানে আশরাফুল তার আরও তিন বন্ধুকে ডেকে আনে। এরপর ওই কিশোরীকে তারা রাতভর পালাক্রমে ধর্ষণ করে। ভোর হলে কুটিরচর এলাকায় ওই কিশোরীকে ফেলে রেখে তারা পালিয়ে যায়। সকালে স্থানীয়রা থানায় খবর দিলে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে কিশোরীকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।

তিনি আরও জানান, এ ঘটনায় সোমবার দুপুরে ওই কিশোরীর ভাই বাদী হয়ে থানায় মামলা করেছেন। মামলার পর এজাহারভুক্ত দুই আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। বাকি আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

প্রকাশিত : ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯ খ্রিস্টাব্দ, মঙ্গলবার

চাঁদপুর রিপোর্ট : এমআরআর/

ফেসবুকে মন্তব্য করুন
158 জন পড়েছেন