কচুয়ায় স্ত্রীকে নিতে এসে ৪ দিন শিকলে বন্দী স্বামী উদ্ধারে এসে শ্বশুরও আটক

0
20

 

কচুয়া প্রতিনিধি :

http://picasion.com/

কচুয়ায় স্ত্রীকে নিতে এসে ৪ দিন ধরে শিকলে বন্দী স্বামী এবং ছেলেকে উদ্ধার করতে এসে শ্বশুরও আটক হয়েছে। কচুয়া উপজেলার গোহট উত্তর ইউনিয়নের খিলা গ্রামে এ ঘটনাটি ঘটে।

জানা গেছে, ময়মনসিংহ জেলার ফুলপুর উপজেলার রামসোনা গ্রামের মিলন মিয়ার ছেলে শিপন শনিবার রাতে তাঁর বিবাহিতা স্ত্রী হালিমা বেগমকে শ্বশুর বাড়ি কচুয়া উপজেলার গোহট উত্তর ইউনিয়নের খিলাগ্রামের পাটওয়ারী বাড়িতে (পাতর বাড়ি) নিতে আসেন।

হালিমা বেগম ও তার পরিবারের লোকজন হালিমা বেগমকে প্রেমের তিন মাসের বিবাহিত জীবনে শারীরিক নির্যাতনের অভিযোগ এনে শিপনকে শিকল দিয়ে বেঁেধ ঘরের একটি কক্ষে তালা দিয়ে আটক করে রাখে।

সংবাদ পেয়ে সোমবার শিপনের পরিবারের লোকজন (বাবা-মা) ময়মনসিংহ থেকে আসলে স্থানীয় কিছু সালিসের সিদ্ধান্ত মোতাবেক হালিমাকে ডিভোর্স দেয়ার কথা বলে কাবিননামার ১ লক্ষ ১০ হাজার টাকা দাবি করে শিপনের বাবা মিলনকেও আটক করে রাখে। মঙ্গলবার সকালে শিপনের মা শিল্পী বেগমকে টাকা আনার জন্যে তাদের গ্রামের বাড়ি ময়মনসিংহে পাঠানো হয়।

এ ব্যাপারে কচুয়া উপজেলার নির্বাহী অফিসার দীপায়ন দাস শুভ জানান, আমি এ বিষয় জানতে পেরে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যানকে বিষয়টি সুষ্ঠু তদন্ত করে আইনের ব্যত্যয় ও মানবাধিকার লঙ্ঘন না করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেশ প্রদান করেছি ।

উল্লেখ্য, শিপন ও হালিমার মধ্যে মুঠোফোনে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠার পর পারিবারিক সম্মতিতে তাদের ১৯ সেপ্টেম্বর-২০১৯ খ্রিঃ তারিখে বিয়ে সম্পন্ন হয়।

 

প্রকাশিত : ১১ ডিসেম্বর ২০১৯ খ্রিস্টাব্দ, বুধবার :

চাঁদপুর রিপোর্ট : এমআরআর

ফেসবুকে মন্তব্য করুন
498 জন পড়েছেন
http://picasion.com/