o–

ফরিদগঞ্জে উপজেলা আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদকসহ ২১ নেতার জামিন

আনিছুর রহমান সুজন :

এক বছর আগের ঘটনা উল্লেখ করে দায়েরকৃত মামলায় অবশেষে জামিন পেলেন ফরিদগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবু সাহেদ সরকারসহ ২১ নেতা।

সোমবার চাঁদপুর সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. হাসান জামানের আদালনে হাজির হয়ে উল্লেখিত নেতারা জামিন আবেদন করলে আদালত তা মঞ্জুর করেন।

এর আগে গত ১৪ জানুয়ারী চাঁদপুর আমলী আদালতে ২০১৯ সালের ২৯ জানুয়ারী, ১মে এবং ১ডিসেম্বর এই তিনটি তারিখের কথা উল্লেখ করে বর্তমান এমপির অনুসারী সোহাগ হোসেন নামে একই যুবলীগ কর্মী উপজেলা আওয়ামীলীগের শীর্ষস্থানীয় ২২ নেতার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে।

এব্যাপারে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবু সাহেদ সরকার বলেন, উপজেলা আওয়ামী লীগ ও অঙ্গসংগঠনের নেতাদের মিথ্যা ও হয়রানি মূলক মামলা দিয়ে হয়রানি করার নীল নকশা বাস্তবায়ন করার অপচেষ্টা চলছে। এরই জের ধরে এই মামলা । এক বছর পুর্বে সেই দিন কি ঘটেছিল তা সকলের কাছে দিবালোকের মতো স্পষ্ট।

মামলায় জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি অ্যাড. শেখ মো: জহিরুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক অ্যাড.শাহাদাত হোসেন, অতিরক্তি পিপি অ্যাড.সাইয়েদুল ইসলাম, অ্যাড. জহিরুল ইসলাম, সাবেক সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. আ: আল মামুন, অ্যাড. জাহিদুল ইসলাম রোমান অ্যাড. বদিউজ্জিামান কিরণ, অ্যাড. সাইফুদ্দিন বাবু, অ্যাড. আহসান হাবিব, অ্যাড. আমির উদ্দিন মন্টু, অ্যাড. হুমায়ুন কবির, অ্যাড. মাহবুবসহ অর্ধশতাধিক আইনজীবি আসামী পক্ষের আদালতে দাঁড়ান।

এর আগে থানা পুলিশ শনিবার রাতে মামলার এক আসামী ফরিদগঞ্জ দক্ষিণ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মামুন হোসেনকে আটক করে । পরে রোবাবর আধারথে হাজির করা কলে আধালত তার জামিন মঞ্জুর করেন।

এই মামলার অন্য আসামীরা হলেন উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ওয়াহিদুর রহমান রানা, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মাহববুল আলম সোহাগ, সাধারণ সম্পাদক জহিরুল ইসলাম সুজন, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারন সম্পাদক কাউছারুল আলম

748 জন পড়েছেন
শেয়ার করুন