Press

শাহরাস্তি উপজেলার ইটভাটার মালিকগণের সাথে চাঁদপুর পরিবেশ অধিদপ্তরের মতবিনিময়

প্রেস বিজ্ঞপ্তি:

আজ ০৮ জানুয়ারি ২০২০ তারিখ বুধবার পরিবেশ অধিদপ্তর,  সভায় সভাপতিত্ব করেন পরিবেশ অধিদপ্তর, চাঁদপুর জেলা কার্যালয়ের উপপরিচালক জনাব এ, এইচ, এম, রাসেদ।

উপপরিচালক জনাব এ, এইচ, এম, রাসেদ সভায় “ইট প্রস্তুত ও ভাটা স্থাপন (নিয়ন্ত্রণ) (সংশোধন) আইন, ২০১৯” মোতাবেক ইটভাটা পরিচালনার জন্য ইটভাটার মালিকগণকে অনুরোধ করেন। এছাড়া আইন অনুযায়ী নিষিদ্ধ এলাকায় অবস্থিত ইটভাটার কার্যক্রম বন্ধ করার জন্য বলা হয়।

এছাড়া সরকারী কাজে পর্যায়ক্রমে বøক ইট ব্যবহারের বাধ্যতামূলক করার বিষয়টি সভায় অবহিত করা হয়। মতবিনিময় সভায় আরও বক্তব্য রাখেন চাঁদপুর জেলা ইটভাটা মালিক সমিতির সাধারন সম্পাদক জনাব শাহ মোঃ শফিকুল ইসলাম, মেসার্স মদিনা ব্রিকসের স্বত্বাধিকারী জনাব মোঃ ফারুক হোসেন মিয়াজী, মেসার্স নুর ব্রিকসের স্বত্বাধিকারী জনাব মোঃ সামসুল হুদা, মেসার্স মুক্তা ব্রিকসের সত্বাধিকারী জনাব মোঃ শাহাদাত হোসেন রাজুসহ অন্যান্যরা। তাঁরা ইটভাটা পরিচালনায় পরিবেশ অধিদপ্তরের সহায়তা কামনা করেন। সভায় বিস্তারিত আলোচনা শেষে নি¤œবর্ণিত সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

“ইট প্রস্তুত ও ভাটা স্থাপন (নিয়ন্ত্রণ) (সংশোধন) আইন, ২০১৯” মোতাবেক সকল ইটভাটা পরিচালনা করতে হবে।

আইন অনুযায়ী নিষিদ্ধ এলাকায় অবস্থিত ইটভাটার কার্যক্রম সম্পূর্ণরুপে বন্ধ রাখতে হবে।

যে সকল ইটভাটার অনুকূলে পরিবেশ অধিদপ্তরের ছাড়পত্র রয়েছে, সেসকল ইটভাটার অনুকূলে প্রদত্ত ছাড়পত্রের মেয়াদ উর্ত্তীণের ০১ (এক) মাস পূর্বে নবায়নের আবেদন দাখিল করতে হবে।

সকল ইটভাটা পরিবেশ অধিদপ্তরের ছাড়পত্র এবং জেলা প্রশাসনের ইট পোড়ানো লাইসেন্স গ্রহণপূর্বক পরিচালনা করতে হবে।
ইটভাটায় মাটির ব্যবহারসহ অন্যান্য বিষয়সমূহ আইন অনুযায়ী পরিচালনা করতে হবে।

পরিবেশ অধিদপ্তর, চাঁদপুর জেলা কার্যালয়ের উদ্যোগে এখন পর্যন্ত মোট ০৭ (সাত)টি উপজেলার ইটভাটার মালিকদের সাথে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। চাঁদপুর জেলার সদর উপজেলার ইটভাটার মালিকদের সাথে শ্রীঘই মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হবে। ভবিষ্যতেও পরিবেশ অধিদপ্তর, চাঁদপুর জেলা কার্যালয়ের উদ্যোগে ইটভাটার মালিকগণের সাথে ও অন্যান্য শিল্প প্রতিষ্ঠানের মালিক/প্রতিনিধিদের সাথে এ ধরণের মতবিনিময় সভা আয়োজন অব্যাহত থাকবে।

 42 সর্বমোট পড়েছেন,  1 আজ পড়েছেন

শেয়ার করুন