farid2

ফরিদগঞ্জে সর্বস্তরের জনগণের প্রাণের দাবি অবশেষে পূরণ হচ্ছে

আনিছুর রহমান সুজন :

চাঁদপুর জেলার ফরিদগঞ্জ উপজেলার ৬ লাখ মানুষের প্রাণের দাবি ফায়ার সার্ভিসের জন্য স্থান নির্ধারণ করে জমি অধিগ্রহণ এবং শেষ পর্যন্ত তা মাপ জরিপ শেষ করে লাল নিশানা টানিয়ে নির্ধারণ করা হয়েছে।

জনমনে বেশ স্বস্তি আসতে শুরু করেছে। সাধারন মানুষ বলছেন যতদিনই লাগুক ফায়ার সার্ভিস স্থাপিত হলে ফরিদগঞ্জবাসী কিছ‚টা হলেও নিঃস্ব হওয়ার হাত থেকে বেঁচে যাবে। সরকার এবং প্রশাসনের প্রতি কুজ্ঞতা জ্ঞাপন করছেন সবাই।

বৃহস্পতিবার  দুপুরে ফরিদগঞ্জ পৌরসভার ভাটিয়ালপুরে জেলা পরিষদের প্রতিনিধি গণপূর্ত অধিদপ্তরের উপ-সহকারী প্রকৌশলী মোঃ আলী নুরের উপস্থিতিতে, চাঁদপুর  ফায়ার সার্ভিসে ও সিভিল ডিফেন্সের উপ সহকারী পরিচালক মোঃ ফরিদ আহাম্মদ কে ডিজিটাল পদ্ধতিতে মেপে জায়গা বুঝিয়ে দেয়া হয়। জায়গার পরিমান ৩৩ শতক।

গণপূর্ত বিভাগের আলী নুর আগামী কর্ম পরিকল্পনা সম্পর্কে বলেন, ফায়ার সার্ভিস আমাদেরকে সকল কাগজপত্র হস্তান্তর করলে আমরা প্রথমেই সয়েল টেস্ট ও ডিজাইনের জন্য ঢাকা পাঠাবো। পর্যায়ক্রমে টেন্ডার প্রক্রিয়ার পর মাটি ভরাট ও স্থাপনা নির্মানের কাজ শুরু হবে। তবে নির্দিষ্ট করে বলতে পারছিনা কবে নাগাদ শেষ হবে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শিউলী হরি প্রতিনিধিকে বলেন, খুবই খুশির বিষয় ফরিদগঞ্জ ফায়ার সার্ভিসের জন্য জমি হস্তান্তর হয়ে গেছে,  এলাকাবাসীর দীর্ঘদিনের দাবী এই গুরুত্বপূর্ন বিষয়ের অচীরেই সমাধান হবে। হর হামেশাই আগুণ লেগে মানুষ নিঃস্ব হয়ে যায়। সচেতনতা না বাড়লে আগুন লাগা হয়ত বন্ধ হবে না, তবে ফায়ার সার্ভিস স্থাপন হলে মানুষের ভোগান্তি কমবে।

226 জন পড়েছেন
শেয়ার করুন