চাঁদপুরে ঈদুল ফিতরের নামাজ মাঠে নয়, মসজিদে অনুষ্ঠিত হবে একাধিক ঈদ জামাত

চাঁদপুর করেসপন্ডেন্ট :

দেশের বর্তমান পরিস্থিতিতে সারাদেশের ন্যায় চাঁদপুরেও এবার ঈদুল ফিতরের নামাজ মাঠে নয়, বিভিন্ন মসজিদ গুলোতে একাধিক ঈদ জামাত করার সিন্ধান্ত নিয়েছে চাঁদপুর ইসলামিক ফাউন্ডেশন।

অন্যান্য বছরে পবিত্র ঈদুল ফিতর ও ঈদুল আযহার নামাজ নির্দিষ্ট ঈদগাহ মাঠে অনুষ্ঠিত হয়ে থাকলেও এবার করোনা সংক্রমণ প্রতিরোধের কারণে এবং সরকারি নির্দেশনা বাস্তবায়নে ঈদের নামাজের জামাত মাঠে না হয়ে মসজিদ গুলো অনুষ্ঠিত হবে।

এক্ষেত্রে যদি একাধিক জামাতের প্রয়োজন হয় তাহলে একাধিক ইমাম দিয়ে সেই একাধিক জামাত সম্পন্ন করার ঘোষণা দিয়েছে চাঁদপুর ইসলামিক ফাউন্ডেশন।

তবে ঈদের নামাজ আদায় করার সময় বাধ্যতামুলকভাবে অবশ্যই সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে হবে বলে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। আর এটি বাস্তবায়ন করবে নিজ নিজ মসজিদের ইমাম ও মসজিদ কমিটিগণ।

জানা যায়, দেশের করোনা পরিস্থিতিতে বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা মতে ঈদের জামাত মসজিদে আদায় করার জন্য ধর্ম মন্ত্রলায় থেকে আসা চিঠিগুলো চাঁদপুর জেলা প্রশাসন, পুলিশ প্রশাসন এবং ইসলামিক ফাউন্ডেশন কর্তৃপক্ষ চাঁদপুরের মসজিদ গুলোতে ইত্যিমধ্য প্রেরণ করেছেন।

এবার পবিত্র ঈদুল ফিতরের নামাজের জামাত মাঠে না করে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে তা মসজিদে সম্পন্ন করার কথা উল্ল্যেখ করে চিঠি প্রদান করা হয়েছে বলে চাঁদপুর ইসলামিক ফাউন্ডেশন।

এ উপলক্ষে ২১ মে বৃহস্পতিবার দুপুরে সরকারি নির্দেশনা বাস্তবায়ন। উপলক্ষে পবিত্র ঈদ-উল-ফিতর ২০২০ এর ঈদ জামাত অনুষ্ঠান সংক্রান্ত চাঁদপুর সদর মডেল থানা, ইসলামিক ফাউন্ডেশন চাঁদপুর সদর উপজেলা ও ইমাম মুয়াজ্জিন কল্যাণ সমিতি যৌথ আয়োজনে এক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

পবিত্র ঈদুল ফিতরের জামাতকে সামনে রেখে চাঁদপুর সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ, পরিদর্শক তদন্ত ইসলামী ফাউন্ডেশন এর প্রতিনিধি বিল্লাল হোসেন, ইমাম মুয়াজ্জিন কল্যাণ সমিতি চাঁদপুর জেলার সাধারণ সম্পাদক জনাব আব্দুর রহমান গাজীসহ থানায় আলোচনা অনুষ্ঠিত হয়।


এতে ইসলামিক ফাউন্ডেশন প্রতিনিধির তথ্যমতে জানাযায়, চাঁদপুর পৌরসভা ১৭৩টি মসজিদ সহ সর্বমোট সদর মডেল থানার আওতায় ৬৭৯ টি মসজিদ রয়েছে। ধর্ম মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা মতে তারা এ কার্যক্রম করছেন।

ঈদগাহ মাঠ উন্মুক্ত স্থানে কোন ঈদের জামাত হবে না মর্মে ইসলামী ফাউন্ডেশন চাঁদপুর প্রতিনিধি বিল্লাল হোসেন জানান, ঈদ জামাত সংক্রান্ত বিষয়ে প্রত্যেক মসজিদের ইমামদেরকে পত্রের মাধ্যমে তারা সচেতন করছেন। মসজিদের মধ্যে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে সরকারি নির্দেশনা মতে একাধিক জামাতের জন্য মসজিদে একাধিক ইমামের ব্যবস্থা করবেন। তাছাড়া আগামীকাল (আজ) জুম্মার নামাজে এ বিষয়ে সচেতন করা হবে।

all
চাঁদপুর পৌরসভা এবং প্রত্যেকটা তিনি আরো জানান, ইউনিয়ন পর্যায়ে এ বিষয়ে সচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে ইসলামী ফাউন্ডেশন মাইকিং এর ব্যবস্থা করবেন। ইসলামিক ফাউন্ডেশন এর প্রতিনিধির মাধ্যমে আরো জানাযায় সরকারি নির্দেশনা মতে মসজিদে জীবাণুনাশক স্প্রে, শিশু ও বৃদ্ধদের সংক্রান্ত নির্দেশনা এবং বিভিন্ন প্রকার ধর্ম মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা অনুসরণ ও পরিপালনের ব্যবস্থা করবে ইসলামী ফাউন্ডেশন চাঁদপুর। ঈদের নামাজ সংক্রান্ত সরকারি নির্দেশনা এবং তা বাস্তবায়ন করার জন্য ইসলামী ফাউন্ডেশন কাজ করছ মর্মে জানান এবং আইন-শৃঙ্খলা সংক্রান্ত যেকোন ধরনের সহযোগিতা চাঁদপুর সদর মডেল থানার পক্ষ থেকে করা হবে।

আমরা সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে সরকারি নির্দেশনা মতে ঈদের জামাত অনুষ্ঠানের মাধ্যমে ঈদ-উল-ফিতরের ঈদ উদযাপন করবে সকলে এ প্রত্যাশায় রেখে আলোচনার সমাপ্তি ঘটে।

182 জন পড়েছেন

Recommended For You

অনুমতি ব্যতীত এই সাইটের কোনো সংবাদ, ছবি অন্য কোনো মাধ্যমে প্রকাশ আইনত দণ্ডনীয়