চাঁদপুর জুয়েলার্স সমিতির বিরুদ্ধে স্বেচ্ছাচারিতা ও অনিয়মের অভিযোগে থানায় মামলা

স্টাফ রিপোর্টার  :

বাংলাদেশ জুয়েলার্স সমিতি চাঁদপুর জেলা শাখার শীর্ষ নেতৃবৃন্দের বিরুদ্ধে স্বেচ্ছাচারিতা অনিয়ম ও স্বৈরতান্ত্রিক আচরণ সহ বিভিন্ন ধরনের অভিযোগ পাওয়া গেছে। কমিটির মেয়াদ শেষ হলেও নিজেদের ক্ষমতা টিকিয়ে রাখতে সংগঠনের সদস্যদেরকে বিভিন্নভাবে হয়রানি করে নিজেদের আয়ত্তে এনে ক্ষমতায় টিকে থাকার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

বিভিন্ন দপ্তরে প্রেরিত অভিযোগ ও চাঁদপুর মডেল থানায় দায়েরকৃত মামলা থেকে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী জানা যায়, বাংলাদেশ জুয়েলার্স সমিতি চাঁদপুর জেলা শাখার মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়েছে গত ৭ আগস্ট। মেয়াদ উত্তীর্ণ এ সংগঠনের পক্ষ থেকে কার্যকরী পরিষদের কোন সভা বা মিটিং ডেকে কেনো এখনো নতুন কমিটির বিষয়ে কোনো ব্যবস্থা নেয়া যাচ্ছে না তা জানানো হয়নি।

কার্যকরী পরিষদের মেয়াদ শেষ হওয়ার পর ও সংগঠনের শীর্ষ কয়েকজন নেতা একের পর এক অনিয়মতান্ত্রিক অগঠনতান্ত্রিক, স্বৈরাচারী আচরণের মধ্য দিয়ে সংগঠন চালিয়ে যাচ্ছে । অনিয়মতান্ত্রিক কাজের বিরুদ্ধে এবং নিবাচনের মাধ্যমে নতুন কমিটি গঠন করার কথা বললে এবং অগণতান্ত্রিক কার্যকলাপের প্রতিবাদ করলে তাঁরা সংগঠনের সদস্য বা স্বন ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে নানা অভিযোগ ও বিভিন্ন হয়রানি করেছেন।

দীর্ঘদিন যাবত বিভিন্ন অজুহাতে কথায় কথায় যে কোনো ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে অসম্মান জনক কথা লিখে সংগঠনের নামে একটি লিফলেট ছাপিয়ে তা বিতরণ করে ব্যবসায়ীদের ব্যক্তিগত সুনাম এবং তাদের ব্যবসার ক্ষতি সাধন করে আসছে। আবার সংগঠন থেকে বহিষ্কার করে মোটা অঙ্কের অর্থের বিনিময় সমঝোতার মাধ্যমে তাদেরকে পুনরায় সদস্যপদ দেওয়ার অভিযোগ রয়েছে। এমনটি এধরনের উদাহরণ ও রয়েছে।

বতমান নেতৃত্বের পছন্দের বাইরের ব্যবসায়ীকে প্রশাসন দিয়ে বিভিন্নভাবে হয়রানি করে আসছে। এসকল অপকর্মগুলো করে তাঁরা ক্ষমতা দীর্ঘ মেয়াদী টিকিয়ে রাখতে এবং ব্যবসায়ীদেরকে জিন্মি করে ক্ষমতা দীর্ঘ মেয়াদী করার এ অপচেষ্টা বলে জানান ভুক্তভোগী ব্যবসায়ীরা। এমনকি সংগঠনের শীর্ষ ২/৪ জন নেতা বিভিন্ন অজুহাতে নানা কথা বলে এবং প্রশাসনের নাম ভাঙ্গিয়ে চাঁদপুরের জুয়েলার্স ব্যবসায়ীদের কাছ থেকে প্রতি মাসে দফায় দফায় লক্ষ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ রয়েছে। অভিযোগ রয়েছে, এই সংগঠনের একজন শীর্ষ নেতা এ টাকা হাতিয়ে নিয়ে আজ কোটিপতি এবং বড় ধরনের স্বন ব্যবসায়ী হয়েছেন । এ গুলোর প্রতিবাদ করলেই ঐ ব্যবসায়ী হয়ে যান সমাজের, ব্যবসায়ীদের মাঝে , সবচেয়ে খারাপ ব্যক্তি।
শুধু তাই নয় মিথ্যা নামে-বেনামে অভিযোগও দায়ের করে।

ভুক্তভোগীরা আরো জানান, ব্যবসায়ীরা নিরুপায় হয়ে শরণাপন্ন হলে তখন ওই ব্যবসায়ীর কাছ ব্যক্তিগত বেশকিছু স্বাথ আদায় করে নেন এমনকি আর্থিকভাবেও ক্ষতি সাধন করেন।

এদিকে বর্তমান কমিটির মেয়াদ শেষ হওয়ায় অবিলম্বে বিগত মেয়াদের সকল আয় ব্যয়ের হিসাব উপস্থাপন করে নতুন নির্বাচনের মাধ্যমে নতুন নেতৃত্বের দাবি করে আসছিলো ব্যবসায়ীরা। এ দাবির প্রেক্ষিতে স্থানীয় প্রতিষ্ঠিত ব্যবসায়ী শেখ জুয়েলাসের মালিক মোঃ বিল্লাল শেখ সকল ব্যবসায়ীদের সাথে একমত পোষণ করায় তার বিরুদ্ধে বিভিন্নভাবে অগণতান্ত্রিক ও সংগঠনের পরিপন্থী গঠনতন্ত্রবিরোধী বিভিন্ন ষড়যন্ত্র করে আসছে।

সে এসকল বিষয়ে সংগঠনের নীতিনির্ধারকদের সাথে মৌখিক আলাপ আলোচনা করলে তার বিরুদ্ধে হয়রানিমূলক বিভিন্ন সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে। অথচ সংগঠনের গঠনতন্ত্র অনুযায়ী তারা এ সকল সিদ্ধান্ত গ্রহণ করতে পারেন না, কারণ কোন সংগঠনের সদস্যের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হলে সংগঠনের গঠনতন্ত্রকে অনুসরণ করেই তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করার নিয়ম থাকলেও এটি মানছে না এই সংগঠন। তাছাড়া মেয়াদ উওীন কমিটির কোনো সদস্যের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার কোনো এখতিয়ার নেই।

এই অবস্থায় শেখ মোহাম্মদ বিল্লাল সংগঠনের সভাপতি মোস্তফা মিয়া ওরফে ফুল মিয়া, সাধারণ সম্পাদক মানিক পোদ্দার, স্বন ভুবনের স্বত্বাধিকারী মানিক মজুমদার, স্বর্ণ মহড়ার স্বত্বাধিকারী নজির আহমেদ, আল্পনা জুয়েলার্স এর স্বত্বাধিকারী অজিত সরকার, পরমিতা জুয়েলার্স এর স্বত্বাধিকারী জয়রাম রায়ের নাম উল্লেখ করে,তাদের বিরুদ্ধে চাঁদপুর মডেল থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন। যার নং – ৭৪০। তাং ১৪/১০/২০২০ইং। তিনি সাধারণ ডায়েরিতে উল্লেখ করেন উল্লিখিত ব্যক্তিরা তাকে কিভাবে ব্যবসা করেন তা দেখিয়ে দিবেন। এমনকি তাকে ও তার পরিবারের সদস্যদের মে’রে ফেলার হুমকি দেন। তাই তিনি নিরুপায় হয়েই সাধারণ ডায়েরি করেন।

তাই ব্যবসায়ী নগরী চাঁদপুরের ব্যবসার পরিবেশ সুস্থ ও সুন্দর রাখতে এবং জুয়েলার্স ব্যবসার ঐতিহ্য অক্ষুন্ন রাখতে সাধারণ ব্যবসায়ীরা এ বিষয়ে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের অতি দ্রুত প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন বলে কামনা করছেন।

আমরা সংবাদের বস্তুনিষ্ঠতায় বিশ্বাসী, পাঠকের আস্থাই আমাদের মূলধন

১৮ অক্টোবর ২০২০ খ্রি. ০২ কার্তিক ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৩০ সফর ১৪৪২ হিজরি, রোববার

67 জন পড়েছেন

Recommended For You

অনুমতি ব্যতীত এই সাইটের কোনো সংবাদ, ছবি অন্য কোনো মাধ্যমে প্রকাশ আইনত দণ্ডনীয়