chandpur report 1215

মানিকগঞ্জে অদ্ভুত মানব: এক ঘুমে কাটিয়ে দেন সাতদিন; সাবাড় করেন ১০ জনের খাবার

মানিকগঞ্জে এক অদ্ভুত মানবের সন্ধান মিলেছে। যিনি এক ঘুমে কাটিয়ে দিতে পারেন সাতদিন; সাবাড় করতে পারেন ১০ জনের খাবার। তিনি দুই-তিন দিন ঘুমিয়ে থাকেন টয়লেটে। গোসলেও লাগে দীর্ঘ সময়।

এই অদ্ভুত মানবের নাম ভম্বল শীল। তার এই অস্বাভাবিক জীবন-যাপন চলছে ২০ বছর ধরে। চিকিৎসকরা বলছেন, এটি একটি জটিল মানসিক রোগ। চিকিৎসায় এই রোগ থেকে সুস্থ করা সম্ভব।

চলাফেরা আর কথা-বার্তা শুনে বোঝার কোনো উপায় নেই, আর দশজন মানুষের মতো স্বাভাবিক নয় ভম্বল শীল। কিন্তু তার জীবন-যাপন বড়ই অদ্ভুত।

জানা যায়, মানিকগঞ্জ সদর উপজেলার কৃঞ্চপুর গ্রামের ভম্বল শীলের বেশিরভাগ সময়ই কাটে ঘুমিয়ে। এক ঘুমে কাটিয়ে দেন পুরো সপ্তাহ। মাঝেমধ্যে উঠে টয়লেটে যান। তবে সেখানে গিয়েও ঘুমান। গোসলেও লাগে দীর্ঘ সময়। একবার পুকুরে নামলে সকাল পেরিয়ে বিকাল হয়। প্রায় ২০ বছর ধরে এমন অস্বাভাবিক জীবন-যাপন ভম্বলের।

জীর্ণশীর্ণ দেহ অথচ একাই খেয়ে ফেলেন কয়েকজনের খাবার। ভম্বলকে তাই ঠিকমতো খেতে দিতে পারেন না পরিবারের সদস্যরা। বিভিন্ন সামাজিক অনুষ্ঠানে গেলেই কেবল তার খাওয়া হয় পেটভরে।

পরিবারের লোকজন জানান, পনের বছর বয়স পর্যন্ত স্বাভাবিক-ই ছিলেন ভম্বল। ধীরে ধীরে পরিবর্তন আসতে থাকে আচরণে। তবে অর্থাভাবে তার সুচিকিৎসা করা হয়নি।

চিকিৎসকরা বলছেন, ভম্বল জটিল মানসিক রোগে আক্রান্ত। দ্রুত চিকিৎসা করালে তিনি সুস্থ হয়ে উঠবেন।

আমরা খবরের বস্তুনিষ্ঠতায় বিশ্বাসী, সঠিক সংবাদ পরিবেশনই আমাদের বৈশিষ্ট্য

আপডেট সময় : ০২:০১ পিএম

১৬ নভেম্বর ২০২০ খ্রি. ০১ অগ্রহায়ণ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরি, সোমবার

 

 

শেয়ার করুন