chandpur report 619

মতলব উত্তরে ভাস্কর্য ভাঙার প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ

সফিকুল ইসলাম রানা :

কুষ্টিয়ার পাঁচ রাস্তার মোড়ে বঙ্গবন্ধুর নির্মাণাধীন ভাস্কর্য ভেঙ্গে ফেলার প্রতিবাদে মতলব উত্তর উপজেলা আওয়ামী লীগের উদ্যোগে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

রবিবার বিকেলে উপজেলার ছেংগারচর পৌর আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ সংগঠন কার্যালয় থেকে শুরু করে বিক্ষোভ মিছিলটি গুরুত্বপূর্ণ সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে পুনরায় একই স্থানে এসে এক সমাবেশে মিলিত হয়।

সমাবেশে বক্তব্য রাখেন- মতলব উত্তর উপজেলা আওয়ামী লীগের আহবায়ক বীর মুক্তিযোদ্ধা মিয়া মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম, যুগ্ম আহবায়ক জাহাঙ্গীর আলম মাষ্টার, সরকার মোহাম্মদ আলাউদ্দিন ও বীর মুক্তিযোদ্ধা মোখলেছুর রহমান মাষ্টার।

বক্তারা বলেন, স্বাধীনতার মাসে এই মৌলবাদীরা আবারও ষড়যন্ত্র শুরু করেছে। ভুল ফতোয়া দিয়ে জনগণকে বিভ্রান্ত করতে উস্কানি দিচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কওমি মাদ্রাসার স্বীকৃতি দিয়েছেন। আলাদা বোর্ড গঠন করে সার্টিফিকেটের মর্যাদা দিয়েছে, ৫শ’ মডেল মসজিদ নির্মাণ করছে। মাদ্রাসার সুপারেন্টড পদকে অধ্যক্ষ পদে উন্নীত করছে। সারা দেশের মসজিদের ইমামদের বিগত ঈদে সম্মানী দিয়েছে। তারপরও মৌলবাদীরা বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য নিয়ে উল্টাপাল্টা বক্তব্য দিয়ে দেশে অস্থিতিশীল পরিবেশ তৈরির পাঁয়তারা করছে।

আর যদি একটি ভাস্কর্যে হাত দেওয়া হয়, তবে আমরাও তাদের প্রতিরোধ করবো। মহান স্বাধীনতার স্থপতি জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্যই যখন এদেশে নিরাপদ নয় তখন মৌলবাদীদের দৌরাত্ম কতদূর পৌঁছেছে তা জানার কিছু বাকী নেই। তারা সেদিন লালনের ভাস্কর্য ভেঙেছে, আজ বঙ্গবন্ধুর ভাঙলো, কাল শহীদ মিনার ভাঙবে, একদিন তারা সোনার বাংলাদেশটাকেই ভেঙে তছনছ করে ফেলবে।

ভাস্কর্য ভাঙার সাথে জড়িত সকলকে দ্রুততম সময়ের মধ্যে শনাক্ত করে আইনের আওতায় আনার জোর দাবি জানান।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, মতলব উত্তর উপজেলা আওয়ামী লীগের আহবায়ক কমিটির সদস্য আল-মামুদ টিটু মোল্লা, নূর মোহাম্মদ, শহীদ উল্লাহ মাষ্টার, সরকার আবুল কালাম আজাদ, গিয়াস উদ্দিন চৌধুরী, আজমল হোসেন চৌধুরী, একেএম শরীফ উল্লাহ সরকার, কবির হোসেন মাষ্টার, এ্যাড. সেলিম মিয়া, আরিফ উল্লাহ, আনিসুর রহমান, গোলাম নবী বাদল, হাবিবা ইসলাম সিফাত, বীর মুক্তিযোদ্ধা সিরাজুল ইসলাম লস্কর, বাবু রাধেশ্যাম, আসাদুজ্জামান আশাদ, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক ও গজরা ইউপি চেয়ারম্যান আলহাজ্ব হানিফ দর্জি, এখলাছপুর ইউপি চেয়ারম্যান হাজী মোসাদ্দেক হোসেন মুরাদ, জহিরাবাদ ইউপি চেয়ারম্যান গাজী সেলিম মিয়া, ছেংগারচর পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি হাসান কাইয়ুম চৌধুরী, ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক রতন ফরাজি, উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক কাজী শরীফ হোসেন, প্রচার সম্পাদক রেফায়েত উল্লাহ দর্জি, উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক আহবায়ক এ্যাড. মহসিন মিয়া মানিক, পৌর ছাত্রলীগে সভাপতি মাহবুব আলম বাবু’সহ উপজেলা ও পৌরসভার আওয়ামীলীগ ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

86 জন পড়েছেন
শেয়ার করুন