chandpur report 2012

মতলব উত্তর কৃষকলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক হাজী আ. মজিদ প্রধানের দাফন

সাংসদ নুরুল আমিন রুহুল ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যানের শোক

মতলব উত্তর প্রতিনিধি :
মতলব উত্তর উপজেলা কৃষকলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক হাজী আবদুল মজিদ প্রধানের দাফন সম্পন্ন হয়েছে।

৫মে বুধবার বাদ যোহর উপজেলার ফরাজীকান্দি ইউনিয়নন্থ হাজীপুর ঈদগাঁহ মাঠে জানাযা শেষে স্থানীয় গোরস্থানে তাকে সমাহিত করা হয়েছে। জানাযা পরিচালনা করেন- ফরাজীকান্দি দরবার শরীফের পীর আল্লামা শায়খ মাসউদ আহমদ বোরহানী।

উপজেলা কৃষকলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক হাজী আবদুল মজিদ প্রধানের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন চাঁদপুর-২ (মতলব উত্তর-দক্ষিণ) আসনের সংসদ সদস্য, ডাক টেলিযোগাযোগ ও তথ্য প্রযুক্তি বিষয়ক সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য আলহাজ্ব এডভোকেট নুরুল আমিন রুহুল এবং উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদেও চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা এমএ কুদ্দুস শোক প্রকাশ করেছেন।

এক শোক বার্তায় আলহাজ্ব এডভোকেট নুরুল আমিন রুহুল বলেন, হাজী আবদুল মজিদ প্রধান শুধু একজন রাজনীতিবিদই ছিলেন না, তিনি ছিলেন একজন সমাজসেবক। প্রবীণ এই নেতার মৃত্যু দেশের রাজনৈতিক অঙ্গনে এক অপূরণীয় ক্ষতি। তিনি হাজী আবদুল মজিদ প্রধানের বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা প্রকাশ করেন।
উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদেও চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা এমএ কুদ্দুস শোকবার্তায় বলেন, তার মৃত্যুতে দেশ এক নিবেদিতপ্রাণ রাজনীতিবিদকে হারালো। আর আওয়ামী লীগ হারালো দলের একজন নিবেদিতপ্রাণ নেতাকে।

জানাযা পূর্বক সংক্ষিপ্ত আলোচনায় ফরাজীকান্দি ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার রেজাউল করিমের সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন- মরহুমে তৃতীয় সন্তান উপজেলা ছাত্রলীগের প্রতিষ্ঠাতা অহŸায়ক আব্দুর রব প্রধান, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শাহজাহান প্রধান, স্থানীয় সংসদ সদস্যের একান্ত সহকারী লিয়াকত আলী সুমন, মেঘনা-ধনাগোদা পানি ব্যবস্থাপনা ফেডারেশনের সাধারন সম্পাদক সরকার মোহাম্মদ আলাউদ্দিন, উপজেলা শিক্ষা অফিসার ইকবাল হোসেন ভূঁইয়া, সমাজ সেবক লিটন মিয়া, হাজীপুর মাদরাসা পরিচালনা কমিটির সভাপতি ডা. জাহাঙ্গীর আলম, সমাজ সেবক ইয়াছির মোল্লা, উপজেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সাধারণ সম্পাদক সাংবাদিক শামসুজ্জামান ডলার।

জানাযায় উপস্থিত ছিলেন- ফরাজীকান্দি কামিল মাদ্রাসার সাবেক হেড মোহাদ্দেস আলহাজ্ব হযরত মাওলানা সিরাজ-উদ-দৌলাহ, উপজেলা কমিউনিটি পুলিশিং এর সাধারণ সম্পাদক ও ফতেপুর পশ্চিম ইউপি চেয়ারম্যান নুর মোহাম্মদ, চরকালিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক দলিল উদ্দিন, ফরাজীকান্দি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি হেলাল উদ্দিন সরকার, সুমন, চরকালিয়া উচ্চ বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সদস্য ও আওয়ামীলীগ নেতা কামাল হোসেন গাজী, উপজেলা শিক্ষক সমিতির সাবেক সভাপতি ছৈয়দ আহমদ বুলবুল, সমাজ সেবক তাফাজ্জল হোসেন সরকার, ফরাজীকান্দি কমপ্লেক্সের প্রশাসনিক কর্মকর্তা নুরুজ্জামান, প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক যথাক্রমে রহমত পাটোয়ারী, দেওয়ান আবুল খায়ের, আবুল কালাম, শফিকুল ইসলাম, আনোয়ারুল কবির’সহ বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধান ও সহকারীগণ, আওয়ামীলীগ নেতা জালাল উদ্দিন কবিরাজ, চরকালিয়া উচ্চ বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সদস্য ও আওয়ামীলীগ নেতা রমিজ উদ্দিন শিশির, আওয়ামীলীগ নেতা মনির হোসেন বেপারী, উপজেলা যুবলীগের সদস্য ওয়াহিদুজ্জামান মুকুল, ইউপি সদস্য যথাক্রমে নাছির উদ্দিন মুন্সি, মাহবুব আলম মিস্টার, সালাউদ্দিন, ইসমাইল হোসেন’সহ অন্যান্য সদস্যগন, ফরাজীকান্দি ইউনিয়ন যুবলীগের সাধারন সম্পাদাক আতাউর রহমান সবুজ, ফরাজীকান্দি ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারন সম্পাদক আব্দুল মান্নান’সহ রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ, শিক্ষক সমাজসহ বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার গন্যমান্য ব্যাক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, উপজেলা কৃষকলীগের সাবেক সাধারন সম্পাদক হাজী আবদুল মজিদ প্রধান ৪ মে মঙ্গলবার রাত ২ টায় ঢাকার পপুলার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন (ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৮০ বছর। মৃত্যুকাল তিনি স্ত্রী, ৬ পুত্র সন্তান ও অসংখ্য গুনগ্রাহী রেখে গেছেন। তার বাড়ী উপজেলার ফরাজীকান্দি ইউনিয়নন্থ হাজীপুর গ্রামে।

হাজী আব্দুল মজিদ প্রধান উপজেলা কৃষকলীগের সাবেক সাধারন সম্পাদক, হাজীপুর ক্বাদরিয়া হাফিজিয়া মাদ্রাসার সাবেক সভাপতি’সহ বিভিন্ন সামাজিক ও ধর্মীয় কার্যক্রমের সাথে জড়িত ছিলেন।
হাজী আব্দুল মজিদ প্রধানের বড় ছেলে আবদুর রহমান প্রধান সৌদি আরবে থাকেন, আবদুর রহিম প্রধান মতলব উত্তর উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ম-আহবায়ক, আবদুর রব প্রধান মতলব উত্তর উপজেলা ছাত্রলীগের প্রতিষ্ঠাতা আহবায়ক, মঞ্জুর প্রধান ঢাকায় চাকুরী করেন, আব্দুল বাতেন প্রধান চাঁদপুর জেলা সহকারী শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক এবং ছোটছেলে আব্দুল বাসেদ প্রধান ঢাকায় ব্যবসা করেন।

 

শেয়ার করুন