হাসপাতাল ম্যাজিস্ট্রেট

মতলবের ছেঙ্গারচর জেনারেল হাসপাতাল সিলগালা : মালিকের কারাদণ্ড

সফিকুল ইসলাম রানা, স্টাফ করেসপন্ডেন্ট :
চাঁদপুরের মতলব উত্তর উপজেলার ছেঙ্গারচর বাজারস্থ সুরুজ প্লাজায় ‘ছেঙ্গারচর জেনারেল হাসপাতাল এণ্ড ডায়াগষ্টিক কমপ্লেক্সে’ সিলগালা ও মালিক কুলসুমা আক্তার সুমনাকে এক বছরের কারাদণ্ড প্রদান করেছেন ভ্রাম্যমান আদালত।

ছেঙ্গারচর বাজারস্থ সুরুজ প্লাজায় ‘ছেঙ্গারচর জেনারেল হাসপাতাল এণ্ড ডায়াগষ্টিক কমপ্লেক্সে’ গাইনী সার্জন চিকিৎসক ছাড়াই সিজারিয়ান অপারেশন চলছে। প্রায়সই এই বেসরকারি হাসপাতালটির বিরুদ্ধে এমন অভিযোগ দেন রোগীরা। অভিযোগের সরেজমিন তদন্ত করে বিভিন্ন মিডিয়ায় সংবাদ প্রকাশ হয়েছে।

এ ঘটনায় মঙ্গলবার (৮ জুন) দুপুরে ভ্রাম্যমান আদালত মালিক সুমনা আক্তারকে এক বছরের কারাদন্ড ও অভিযুক্ত হাসপাতাল সিলগালা করে দিয়েছেন। ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করেন সহকারি কমিশনার (ভ‚মি) ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট আফরোজা হাবিব শাপলা। সাথে উপস্থিত ছিলেন মতলব উত্তর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ নুসরাত জাহান মিথেন।

ডাঃ নুসরাত জাহান মিথেন বলেন, বিভিন্ন পত্রিকায় ছেঙ্গারচর জেনারেল হাসপাতাল এণ্ড ডায়াগষ্টিক কমপ্লেক্সের বিরুদ্ধে সংবাদ প্রকাশ হয়েছে। আমি উর্ধতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে হাসপাতালটিতে মোবাইল কোর্টের সাথে অভিযানে যাই। গিয়ে ওই হাসপাতালের লাইসেন্স দেখাতে পারেনি কর্তৃপক্ষ। এছাড়াও ভুয়া ডাক্তার দিয়ে হাসপাতাল পরিচালা করার প্রমাণ পাওয়া গেছে। হাসপাতালে সিজার অপারেশনের জন্য এবং চিকিৎসা সেবা দেওয়ার জন্য পর্যাপ্ত ইন্সটলমেন্ট নেই।

এদিকে নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট আফরোজা হাবিব শাপলা বলেন, উল্লেখিত হাসপাতালটির লাইসেন্স নেই। এবং ভুয়া ডাক্তার দিয়ে হাসপাতাল পরিচালনা করার অপরাধে বাংলাদেশ মেডিকেল এন্ড ডেন্টাল কাউন্সিল আইন ২০১০ অনুযায়ী মালিক সুমনা আক্তারকে এক বছরের কারাদন্ড দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি হাসপাতালটি অনির্দিষ্টকালের জন্য সিলগালা করে দেওয়া হয়েছে।

39 জন পড়েছেন
শেয়ার করুন