আট উপজেলায় ৩৫০ বেড

করোনা রোগীদের চিকিৎসায় চাঁদপুরে আট উপজেলায় ৩৫০ বেড প্রস্তুত

বিশেষ সম্পাদকীয় :

করোনা রোগীদের চিকিৎসায় চাঁদপুরে আট উপজেলায় ৩৫০ বেড প্রস্তুত রয়েছে বলে জানিয়েছেন সিভিল সার্জন ডা. মো. সাখাওয়াত উল্যাহ।

এ ধরনের উদ্যোগকে সাধুবাদ জানাই। তবে আরো ব্যাপকভাবে করোনা রোগীদের চিকিৎসার জন্য চিন্তা-ভাবনা ও তদানুযায়ী পরিকল্পনা করতে হবে।

কারণ সঠিকভাবে স্বাস্থ্যবিধি না মানার কারণে সারাদেশে যে হারে দ্রুত করোনা সংক্রমণ হচ্ছে, বিশেষজ্ঞদের ধারণা ঈদের পর এ অবস্থা আরো তিন থেকে চারগুণ বাড়তে পারে।

ঈদের ছুটিতে যে হারে মানুষের নির্দ্ধিধায় চলাচল শুরু হয়েছে। এছাড়াও গরুর হাটগুলোতে স্বাস্থ্যবিধির কোনো তোয়াক্কা করছে না সাধারণ মানুষ। অনেকের গলায় মাস্ক ঝুললেও নাকে মাস্ক দেখতে পাওয়া মানুষের সংখ্যা অপ্রতুল।

সুতরাং এভাবে ঈদের পর হয়তো করোনা সংক্রমণের চিত্র বহুগুনে বাড়তে পারে। সে চিন্তা করে জেলা স্বাস্থ্য বিভাগকে আরো অগ্রগামী ও সচেতন হতে হবে, যাতে দ্বিগুণ বা তিনগুণ হারে করোনা রোগী এলে তা সামাল দেওয়া সহজ হয়। জনবলও বাড়াতে হবে। তাহলে এই করোনা দুর্যোগে সাধারণ মানুষ উপকৃত হবে।

আর সর্বোপরি জনসচেতনতা বাড়াতে হবে। কারণ জনসচেতনতা ছাড়া এ ধরনের বালা-মুছিবত থেকে রক্ষা পাওয়া বেশ কঠিন।

শেয়ার করুন