শেখ হাসিনার জন্মদিন

‘মাদার অব হিউম্যানিটি’ : বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা

মিজানুর রহমান রানা :

হত্যা-নির্যাতন-ধর্ষণের ছোবল থেকে পালিয়ে আসা
দশ লাখ বাস্তুহারা উদ্বাস্তু রোহিঙ্গা নারী-পুরুষ-শিশু
যখন পাচ্ছিলো না বাঁচার কোনো কূল-কিনারা
এগিয়ে আসেন মমতার পরশ নিয়ে-
তাঁর নাম বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা।

পরম আশ্রয়-খাদ্য সঙ্কুলান আর সুন্দর প্রত্যাবর্তনের
সহযোগিতায় তিনি এসব পথহারা মানুষকে
বেঁচে থাকার পথ দেখান
ছুঁটে যান দেশ-দেশান্তরে
মানবিক ভালোবাসায় হৃদয়ভরে।

বিশ্ব নেতারা তাকিয়ে রয়
শেখ হাসিনার মমতার নেই ক্ষয়
যেভাবে হিটলারের নাৎসি বাহিনীর হত্যাযজ্ঞের কবল থেকে
এক লাখ ইহুদিকে বাঁচিয়েছিলেন রাউল ওয়ালেনবার্গ
তার চেয়েও বেশি ভালোবাসা-মমতায় খুলে দেন হৃদয়-অর্গল
দূরদর্শী বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা।

তোমার নেতৃত্বে বাংলাদেশ বিশ্বে রোল মডেল উন্নয়নে
স্থায়ী অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি, খাদ্যে স্বনির্ভরতা, নারীর ক্ষমতায়নে
কৃষি, শিক্ষা, স্বাস্থ্য, গ্রামীণ অবকাঠামো, যোগাযোগ, জ্বালানী ও বিদ্যুৎ, বাণিজ্য,
আইসিটি, এসএমই খাতে ব্যাপক সাফল্য হয়েছে অর্জন।

যুদ্ধাপরাধীদের বিচার, জঙ্গিবাদ প্রতিরোধ, বঙ্গবন্ধুর আত্মস্বীকৃত খুনিদের বিচার,
পার্বত্য চট্টগ্রামের ঐতিহাসিক শান্তি চুক্তি সম্পাদন করেছ আর
একুশে ফেব্রæয়ারি আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের স্বীকৃতি সম্মিলন
বাংলার জাতীয় জীবনের বহুক্ষেত্রে অভাবনীয় সাফল্য তোমার অর্জন।

সারাবিশ্বের মানুষ তাই তোমার মহৎ কাজের প্রশংসায়
উপাধিতে ভূষিত করে-
‘মাদার অব হিউম্যানিটি’, ‘স্টার অব দ্য ইস্ট’

বঙ্গবন্ধুর যোগ্য উত্তরসূরি তুমি
মহানুভব অন্তর শেখ হাসিনা
তোমার অনিন্দ্যসুন্দর হৃদয়ের জয় হলো
তুমিই একমাত্র তোমার তুলনা।

93 জন পড়েছেন
শেয়ার করুন