suicide কীটনাশক পান

মতলবের লেজাকান্দি গ্রামে দুই সন্তানের জননীর বিষপানে আত্মহত্যা

ইমরান নাজির:
মতলব দক্ষিণ উপজেলায় লেজাকান্দি খন্দকার বাড়ীতে বিষ পানে আত্মহত্যা করেছে দুই সন্তানের এক জননী। সে উত্তর উপাদী ইউনিয়নের লেজাকান্দি খন্দকার বাড়ীর ফজলুল হক বকাউলের ছেলে কামালে স্ত্রী।

গত ২ অক্টোবর শনিবার রাত ৩ টার সময় নিজ ঘরে বিষ পান করলে তার স্বামি ও বাড়ীর লোকজন দ্রত মতলব দক্ষিন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স নিয়ে এলে কর্মরত চিকিৎসক তাকে প্রথমিক চিকিৎসা দিয়ে উন্নত চিকিৎসার জন্য চাঁদপুর সদর হাসপাতালে প্রেরন করে ।
ভোর রতে সায়েরা চাঁদপুর সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্হায় মারা যায় ।

এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, স্বামী ও শ্বশুর বাড়ীর লোকজনদের নানা ধরনের অত্যাচার নির্যাতন সইতে না পেরে রাগে ক্ষোভে অভিমান করে বিষ পানে আত্মহত্যা করে সায়েরা আক্তার। তার পিতার বাড়ী নারায়নপুরের বাড়িগাঁও গ্রামে। তার পিতার নাম মৃত দুলাল প্রধান । মৃত্যু কালে সে এক ছেলে ও এক মেয়ে রেখে গেছেন ।

সায়েরা আক্তারের চাচা রহমত উল্লা অভিযোগ করে বলেন, দির্ঘদিন যাবত শ্বশুর বাড়ীর লোকজন তাকে বেধরক মারধর করতো । তার স্বামীকে জানানো হলে উল্টো সায়েরাকে তার স্বামী গালমন্দ করে। শ্বশুর বাড়ীর লোকজনের অত্যাচার সইতে না সায়েরা আত্মহত্যা করেছে ।

এ বিষয়ে সায়েরার শাশুড়ী বলেন আমাদের বাড়ীর কেউ তাকে মারধর করেনি কেন সে বিষ খেয়েছে তা আমরা জানিনা

এ বিষয়ে ওসি মোহাম্মদ মহিউদ্দিন মিয়া বলেন, এ ঘটনাটি শুনেছি চাঁদপুরে মামলা হয়েছে ।

আরো পড়ুন : শ্বেতী রোগের কারণ, লক্ষ্মণ ও চিকিৎসা

আরো পড়ুন : যৌন রোগের কারণ ও প্রতিকার

আরো পড়ুন : ডায়াবেটিস প্রতিকার ও প্রতিরোধে শক্তিশালী ঔষধ

আরো পড়ুন : মেহ প্রমেহ ও প্রস্রাবে ক্ষয় রোগের কার্যকরী সমাধানসমূহ

আরো পড়ুন : গেজ, অশ্ব,পাইলসের সহজ চিকিৎসা

আরো পড়ুন : মলদ্বার দিয়ে রক্ত পড়ার হোমিও চিকিৎসা

 29 সর্বমোট পড়েছেন,  1 আজ পড়েছেন

শেয়ার করুন