blade ব্লেড চাকু খুন dead 1

অনৈতিক নির্যাতন সহ্য করতে না পেরে শিক্ষকের লিঙ্গ কেটে দিল ছাত্র

নিউজ ডেস্ক :

অনৈতিক কাজে বাধা দেওয়ার পরও তা না মানায় ক্ষিপ্ত হয়ে মাদরাসাশিক্ষকের বিশেষ অঙ্গ নেইল কাটার দিয়ে কেটে দিল ছাত্র।

গতকাল বুধবার রাতে এ ধরনের ঘটনা ঘটেছে ময়মনসিংহের নান্দাইল উপজেলার বেতাগৈর ইউনিয়নের পলাশিয়া গ্রামে। আহতাবস্থায় ওই শিক্ষককে চিকিৎসার জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছে। পুলিশ ছাত্রকে আটক করেছে।

স্থানীয় সূত্র ও পুলিশ জানায়, গতকাল বুধবার রাতে উপজেলার খারুয়া ইউনিয়নের টাওয়াইল গ্রামে অবস্থিত এক মাদরাসার মাঠে ওয়াজ মাহফিল চলছিল। ওই মাহফিলে অংশ নেন মাদরাসাশিক্ষক মো. আতাবুর রহমান (৪২)। একই মাহফিলে ওয়াজ শুনতে যায় একই মাদরাসার আবাসিক এক ছাত্র (১৬)। সভা চলার সময় রাতের খাবারের জন্য পূর্বপরিচিত ছাত্রকে বাড়িতে আমন্ত্রণ জানান শিক্ষক আতাবুর।

থানা হেফাজতে থাকা মারাসাছাত্র জানায়, দাওয়াত রক্ষার জন্য সে তার শিক্ষকের সাথে বাড়ি যাচ্ছিল। পথিমধ্যে শিক্ষক আতাবুর রহমান তাকে (ছাত্র) কাছে টেনে নিয়ে শরীরের বিভিন্ন অংশে হাত দিতে থাকেন। একপর্যায়ে সে বাধা দিলে শিক্ষক তাকে জোরপূর্বক বলাৎকারে উদ্যত হন। এসময় সে তার পাঞ্জাবির পকেটে থাকা নেইল কাটার বের করে শিক্ষকের বিশেষ অঙ্গে আঘাত করে ঘটনাস্থল থেকে চলে যেতে থাকে। শিক্ষক রক্তাক্ত অবস্থায় চিৎকার করলে লোকজন ছুটে এসে ছাত্রকে ধরে ফেলেন। পরে পুলিশ এসে ছাত্রকে থানায় নিয়ে যায়।

আহত শিক্ষক ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থাকায় তার সাথে কথা বলা সম্ভব হয়নি। তবে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক আত্মীয় জানান, এটা খুবই লজ্জার কথা। যা ঘটেছে তা ওই ছাত্রের সাথে অনৈতিক কাজ করতে গিয়েই ঘটেছে। এটা হুজুরের প্রাপ্য ছিল।

নান্দাইল মডেল থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. বাবলু রহমান খান বাবলু জানান, ঘটনাটি তদন্ত চলছে।

আরো পড়ুন : শ্বেতী রোগের কারণ, লক্ষ্মণ ও চিকিৎসা

আরো পড়ুন : মেহ-প্রমেহ ও প্রস্রাবে ক্ষয় রোগের প্রতিকার

আরো পড়ুন : অর্শ গেজ পাইলস বা ফিস্টুলা রোগের চিকিৎসা

আরো পড়ুন : ডায়াবেটিস প্রতিকারে শক্তিশালী ভেষজ ঔষধ

আরো পড়ুন : যৌন রোগের শতভাগ কার্যকরী ঔষধ

আরো পড়ুন :  নারী-পুরুষের যৌন দুর্বলতা এবং চিকিৎসা

আরো পড়ুন : দীর্ঘস্থায়ী সহবাস করার উপায়

395 জন পড়েছেন
শেয়ার করুন